検索結果:: অসাধারণ দৃশ্য
公開中 1 to 96 of 369 写真.
বন্ধুরা এই যে ভবন টা দেখতে পাচ্ছেন এটা বাংলাদেশের একটি মাত্র মানসিক হাসপাতাল যেটাকে আমরা বলা হয় পাবনা মানসিক হাসপাতাল তাই এটাকে আমরা বলে থাকি পাবনা পাগলা গারদ বন্ধুরা এই পাবনা পাগলা গারদ একটি অসাধারণ পাগলাগারদ এটা বাংলাদেশের একটাই মাত্র পাবনা পাগলা গারদ অবস্থিত বাংলাদেশের অন্য কোন জেলায় এই মানসিক হাসপাতাল নাই তাই এই বিল্ডিং এর সামনে সাইনবোর্ড দেখতে পাচ্ছেন মানসিক হাসপাতাল পাবনা কারণে পাবনা পাগলা গারদ আছে তা এর ভিতরেই পাগলাগারে এখানে সুযোগ্য ডাক্তার দ্বারা এই মানসিক রোগীদের চিকিৎসা করান হয় খুবই অসাধারণ ভাবে তাই বন্ধুরা আমাদের কাছে এই পাবনা পাগলা গারদে একটি সুন্দর জোকস খুবই ভালো লেগেছে আর নিশ্চয়ই তোমাদের এই ছবিটা ভালো আপনাদের যদি ভালো লেগে থাকে তাহলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর পাবনা পাগলা গারদ এর বিল্ডিং এর দৃশ্য অসাধারণ দৃশ্যমান শিল্পীর হাতে তৈরি বিল্ডিং এর সামনের কারুকাজ সবুজে ঘেরা মাঠ সৌন্দর্য সব মিলিয়ে অসাধারণ তবে বস আপনার যদি পছন্দ হয়ে থাকে তাহলে আপনি আপনার মোবাইলের স্ক্রিন ওয়ালপেপার সেট করে নিতে পারেন খুবই অসাধারণ এবং দৃশ্যমান একটি ছবি এই পাবনা পাগলা গারদ এর আয়ত্ত খুবই  অসাধারণ দৃশ্য
এইযে ভবনটি দেখতে পাচ্ছেন বন্ধুরা এটা পাবনা জজ কোর্টের ভবন এই বিল্ডিংটা নতুন করে 2016 সালে এই বিল্ডিংটা নতুন নির্মাণ করা হয় খুবই অসাধারণ ভাবে নির্মাণ করা হয়েছে এই পাবনা জজ কোর্টের এই বিল্ডিং দেখতে পাচ্ছেন এই পুরো বিল্ডিং এর ডিজাইন কত সুন্দর করে করা হয়েছে শিল্পীর নিপুণ হাতে তৈরি করা এই পাবনা জজ কোটের বিল্ডিংটা আমরা খুবই পছন্দ করে থাকে সামনের দিনগুলো কতইনা সুন্দর হেভি কালারফুল ডিজাইন তাই পাবনা জজ কোর্টের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য নিশ্চয়ই তোমাদের ভালো লাগারই কথা কারণ বন্ধুরা আপনারা দেখতে পাচ্ছেন এই জজকোর্টের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আর এই ডিজাইন করা জিনিস আর সামনে মাঠ ভরা একটি অসাধারণ দৃশ্যমান পাবনা জজ কোটের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য নিশ্চয়ই আপনারা তুলে ধরবো তাই আপনাদের সামনে তুলে ধরার জন্য এই ছবিটা আপনাদের দেয়া হলো পাবনা জজ প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের ছবি আপনার যদি পছন্দ হয়ে থাকে আপনি আপনার মোবাইলের স্ক্রিনে ওয়ালপেপারে সেট করে নিতে পারেন খুবই অসাধারণ এই পাবনা জজ কোর্টের বিল্ডিং এর ছবি নিশ্চয়ই আপনাদের এই ছবিটা খুবই ভালো লাগবে অসাধারণ এক দৃশ্য মনছবি পাবনা জজ কোট এর বিউটিফুল ছবি অসাধারণ ছবি
এটা কি রাস্তার ছবি বন্ধুরা এবার যে ছবিটা আপনাদের সামনে তুলে ধরব পাবনা শহরের মেইন টাউনের ছবি দেখতে পাচ্ছেন এই রাস্তার উপর দিয়ে অনেক রকম যানবাহন চলাচল করছে তার ভিতরে আছে ভ্যানগাড়ি ইজিবাইক মটর সাইকেল সাইকেল এবং অনেক রকম গাড়ি এবং এই পাবনা শহরের দুই সাইডে দেখতে পাচ্ছেন বিল্ডিং বাড়ি কল কারখানা কত কিছুইনা রয়েছে তাই আকাশে সাদা কালো মেঘের ভেলায় রাস্তাটা যেন চিকচিক করছে খুবই অসাধারণ লাগছে এই পাবনা মেন্টাল এই রাস্তার ছবি পাবনা টাউন আমাদের কাছে খুবই প্রিয় তাই এখানে যখন যানবাহন চলাচল করে তখন খুবই ভালো লাগে তাই পাবনা টাউন এর প্রাকৃতিক সৌন্দর্য একটি অসাধারণ সুন্দর তাই আপনাদের নিশ্চয়ই এই সৌন্দর্যের ছবিটা খুবই ভালো লাগলো আপনাদের ভাল লাগলে অবশ্যই বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করুন খুবই অসাধারণ দৃশ্য আর এই ছবিটা আপনাদের নিশ্চয়ই খুবই ভালো লাগবে এই পাবনা মেন্টাল ডাক্তার প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের এই রাস্তার ছবিটা যদি আপনার পছন্দ হয়ে থাকে তাহলে অবশ্যই আপনি আপনার মোবাইলের স্ক্রিনে ওয়ালপেপারে সেট করে নিতে পারেন খুবই অসাধারণ এবং বিশ্ব মান একটি ছবি
মানিক 11 এই জাহাজটি আপনার ঢাকা থেকে সোজা চাঁদপুর যাওয়ার জন্য রওনা দিয়েছে তাই এই মানিক 11 ঢাকা সদরঘাট থেকে চাঁদপুর জেলায় যাওয়ার জন্য বাংলাদেশের সবচেয়ে বিখ্যাত জেলা চাঁদপুর জেলা চাঁদপুরের ইলিশ আমাদের কাছে খুবই প্রিয় এবং অসাধারণ বাংলাদেশের সবচেয়ে বেশি ইলিশ মাছ পাওয়া যায় আমাদের জাতীয় মাছ খুবই অসাধারণ এবং আমরা খুবই পছন্দ করে থাকি তাই এই জাহাজটা ঢাকা থেকে চাঁদপুর যাওয়ার জন্য রওনা দিয়েছেন মাঝখানে একটি লঞ্চঘাট থাকায় জাহাজটি এই ঘাটে বেড়ানো হয়েছে খুবই অসাধারণ এই ডাকাতিয়া নদীর ওপর দিয়ে চাপ পড়ে যাবে এই জাহাজটি সদরঘাট থেকে চাঁদপুর উদ্দেশ্যে ছেড়ে ডাকাতিয়া নদীতে এই ছবিটা তোলা হয় এই ডাকাতিয়া নদীতে প্রচুর পরিমাণে পাওয়া যায় এই ডাকাতিয়া নদীর প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আপনারা দেখতে পাচ্ছেন
কৃষকের ফসলের জমি আর খুবই অসাধারণ দৃশ্যমান এই ছবিগুলো তাই বন্ধুরা আপনাদের নিশ্চয়ই এই প্রাকৃতিক সৌন্দর্য খুবই ভালো লাগে তাই আপনাদের ভাল লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করে এই জাহাজের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য যদি আপনাদের পছন্দ হয়ে থাকে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করুন
এটা একটি ছোট ছবি এই রিসোর্টের নাম কুয়াকাটা রিসোর্ট বাংলাদেশের ঐতিহ্যবাহী জেলা কুয়াকাটা জেলার সবচেয়ে বৃহত্তম সেতু কুয়াকাটা সমুদ্র সৈকত কুয়াকাটা সমুদ্র সৈকত দেখতে বাংলাদেশের প্রতিটা গ্রাম গঞ্জের মানুষ থানা জেলার মানুষেরা পিকনিকে বেড়াতে যায় একটি পিকনিকে পিকনিকে একটি তৈরি করা হয়েছে
এই রিসোর্টের রামদিয়া হয়েছে কুয়াকাটা রিসোর্ট খুবই অসাধারণ এই রিসোর্টের ছবিটা দেখতে পাচ্ছেন এই রিসোর্টের কত সুন্দর করে সাজানো হয়েছে তাই মরুর বুকে বালির উপরে এই রিসোর্টের ছবি একটি অসাধারণ দৃশ্যমান ছবি তাই বিদেশ থেকে যখন পর্যটকরা বেড়াতে আসেন তখনই তাদের অবসর সময় কাটানোর জন্য তারা উপস্থিত হন খুবই অসাধারণ এবং বিশ্ব মানের ছবি তাই সন্ধ্যার পরে পড়ন্ত বিকাল শেষ হওয়ার পরে সন্ধ্যার সময় এই ছবিটা তোলা হয়েছিল খুবই অসাধারণ ভাবে তোলা দেখতে পাচ্ছি না তো সুন্দর করে সাজানো হয়েছে দৃশ্যটা একটি অসাধারণ তাই বাংলাদেশের ঐতিহ্যবাহী কুয়াকাটা কুয়াকাটা সমুদ্র সৈকত রিসোর্ট কুয়াকাটা
যশোর জেলার ছায়াঘেরা অপরূপ সৌন্দর্য এই ছুটিপুর গ্রামের কোল ঘেঁষে বয়ে চলা একটি রাস্তা রাস্তার উপরেই চৌগাছা যশোর জেলার কেশবপুর গ্রামের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য নিশ্চয়ই আপনাদের চোখে পড়বে কারণ এই ছুটিপুর আমাদের কাছে খুবই প্রিয় একটি গ্রাম সেই গ্রামের রাস্তা দেখতে পাচ্ছেন এই রাস্তাটা চৌগাছার উদ্দেশ্যে চলে গেছেন একটি অসাধারণ দৃশ্যমান এই রাস্তার প্রাকৃতিক সৌন্দর্য তাই বন্ধুরা আমাদের কাছে খুবই প্রিয় এবং অসাধারণ দেখতে পাচ্ছে এখানে একটি যাত্রী ছাউনি করা হয়েছে খুবই অসাধারণ ভাবে এই যাত্রী ছাউনিতে করা হয় এবং আরও দেখতে পাচ্ছেন এই যাত্রী ছাউনির সামনে দিয়ে যে রাস্তাটা চলে গেছে রাস্তার উপর দিয়ে একটি ভ্যান গাড়ি চলছে তার নিজের গন্তব্যে এবং এত সুন্দর গাছ গাছ লাগানো হয়েছে কতই না ভাল লাগছে আকাশের আকাশের নীলিমার সাথে হালকা রোদ্দুর যখন গাছের ডালের ফাঁক দিয়ে রাস্তার উপরে পড়েছে তখন কতই না ভাল লাগে তাই যশোর জেলার শ্রীপুর গ্রামের কোল ঘেঁষে বয়ে চলা একটি রাস্তা রাস্তার প্রাকৃতিক সৌন্দর্য একটি অসাধারণ সৌন্দর্য এবং আরো দেখতে পাচ্ছেন চৌগাছা যাওয়ার জন্য রাস্তা দিয়ে যেতে হয় তাই ছুটিপুর গ্রাম আমাদের কাছে খুবই প ্রিয় এবং অসাধারণ তাই বন্ধুরা এই সৌন্দর্য আমার খুবই ভালো লেগেছে তাই আপনাদের যদি ভালো লেগে থাকে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করবেন
গ্রাম গঞ্জের অজ পাড়াগাঁয়ের মানুষেরা সুজলা-সুফলা পরিবেশ কতইনা অসাধারণ তাই বন্ধুরা সকালবেলা ঘুম থেকে উঠে তাকালেই যেন এই প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আমাদের চোখে ভাসছে থাকে খুবই দৃশ্যমান এবং অসাধারণ তেমনই একটি ছবি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম আমাদের সাতক্ষীরা জেলা শহর থেকে প্রায় কুড়ি কিলোমিটার দূরে আমাদের এই গ্রাম গ্রাম গোবিন্দপুর তাই এই গোবিন্দপুর গোবিন্দপুর গ্রামের আমাদের বাড়ির সাইডে একটি বিশাল বড় বাগান রয়েছে এই বাগানে আমরা বলে থাকি অনেক পুরাতন বাগান তাই বাগানের সৌন্দর্য দিন দিন আরো যেন উজ্জ্বল হয়ে উঠেছে কারণ দেখলে আমাদের খুবই ভালো লাগে তাই বন্ধুরা এই বাগানের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য অবশ্যই আপনাদের খুবই ভাল লাগবে তাই আপনাদের যদি এই প্রাকৃতিক সৌন্দর্য ভালো লেগে থাকে তাহলে অবশ্যই আপনার এই বাগানের দৃশ্য গড়ে তুলবেন তাই বন্ধুরাএই বাগানে দেখতে পাচ্ছেন নারিকেল গাছ সবুজ ঘাস প্রাকৃতিক সৌন্দর্য একটি অসাধারণ দৃশ্য মনছবি হয়ে উঠেছে এই গোবিন্দপুর গ্রামের এই বাগানের ছবি তাই সবুজে ঘেরা বাংলাদেশ প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের নাম বাংলাদেশ আর আমাদের সকালবেলা ঘুম থেকে উঠে সোনালী সবুজ আকার দৃশ্যটা একটি অসাধারণ দৃশ্য মন চাই তাই এই ছবিটা আমার খুবই ভালো লেগেছে আমার এলাকার এই প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আমাদের খুব মনকাড়া সৌন্দর্য খুবই ভালো লাগে তাই আপনাদের ভাল লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব
বাংলাদেশের তৃতীয় তম বৃহত্তম সেতু লালন শাহ সেতু এর আরেকটি নাম আছে বঙ্গবন্ধু সেতু তাই আমরাই লালন শাহ সেতু খুবই অসাধারণ এবং সৌন্দর্য তাই সন্ধ্যার পরে অপরূপ সৌন্দর্যের লীলাভূমি এই লালন সদৃশ্যতা এটা কুষ্টিয়ায় অবস্থিত তাই কুষ্টিয়ার লালন শাহ সেতু আমাদের কাছে খুবই প্রিয় এবং সৌন্দর্য তাই বাংলাদেশের ঐতিহ্যবাহী জেলা কুষ্টিয়া জেলা কুষ্টিয়া জেলার যমুনা
এই যমুনা নদীর প্রাকৃতিক সৌন্দর্য এবং লালনসা সেতুর দৃশ্য একটি অসাধারণ দৃশ্যমান সৌন্দর্য সন্ধ্যার পরে অপরূপ সৌন্দর্য ধরে রাখার জন্য এই ছবিটা তোলা হয়েছিল তাই বন্ধুরা আপনারা দেখতে পাচ্ছেন সন্ধ্যার পর এই ছবিটা তুলে নিশ্চয়ই আপনাদের ভাল লাগবে কারণ এই লালনসা সেতুর দুই সাইট দিয়ে কত সুন্দর লাইটিং করে সাজানো হয়েছে এই সেতুটা তাই খুবই দৃশ্যমান বাংলাদেশের তৃতীয় বৃহত্তম সেতু লালন শাহ সেতু কুষ্টিয়া জেলায় অবস্থিত তাই সব মিলিয়ে এই লালন শাহ সেতু প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আর সন্ধ্যার পরে আবার দৃশ্য এবং সব মিলিয়ে একটি দৃশ্য মন চুরি হয়ে উঠেছে তাই আপনাদের যদি এই ছবিটা ভালো লেগে থাকে তাহলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করবেন আপনার যদি পছন্দ হয়ে থাকে আপনি আপনার মোবাইলে ওয়ালপেপারে সেট করে নিতে পারেন অসাধারণ এবং দৃশ্যমান একটি ছবিটা
চিনিডাঙ্গা বিল বাংলাদেশের ঐতিহ্যবাহী জেলা নাটোর জেলা নাটোর জেলার চিনিডাঙ্গা বিল একটি অসাধারন এবং বৃহত্তম বিল টা বিশাল বড় একটি বিল বর্ষার মৌসুমে এখানে প্রচুর পরিমাণ মাছ চাষ করা হয় এই এলাকার মানুষেরা মাছ চাষ করতে খুবই ভালবাসে তাই বন্ধুরা দেখতে পাচ্ছেন বিলের মাঝখানে একটি ছোট্ট পাকা ঘর করা হয়েছে এখানকার কৃষকরা এবং জেলেরা এই ঘরে থেকে এই চিনিডাঙ্গা বিলে মাছ চাষ করে থাকেন এবং দেখতে পাচ্ছেন ছোট ছোট নৌকা রাখা আছে এখানে খুবই অসাধারণ তাই বাংলাদেশের বৃহত্তম জেলা নাটোর নাটোর জেলার প্রাকৃতিক সুন্দর্য আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম খুবই অসাধারণ দেখতে পাচ্ছেন কচুরিপানায় ভাসতেছে কত সুন্দর খেলা এবং অসাধারণ দৃশ্যমান সংগীত তাই বন্ধুরা এই কচুরিপানায় ভাষা গুলো আমাদের কাছে খুবই প্রিয় এবং অসাধারণ তাই এই চিনিডাঙ্গা বিলের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আর হালকা রোদ ধরে ডিএসএলআর ক্যামেরা ছবিটা যেন এক উজ্জ্বল নক্ষত্র হয়ে দাঁড়িয়েছে আজকের ছবি আগামী দিনের ইতিহাস এমন কথায় ছবিটা খুবই অসাধারণ হালকা হালকা গাছে প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আছে তাই সব মিলিয়ে দৃশ্যমান এবং অসাধারণ তাই আপনাদের যদি এই চিনিডাঙ্গা বিলের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য ভালো  লেগে থাকে তাহলে অবশ্যই আপনারা নাটোর জেলার প্রাকৃতিক সৌন্দর্য দেখে আসবেন অবশ্যই অসাধারন এক সুন্দর জমি বস আপনার যদি পছন্দ হয়ে থাকে আপনি আপনার মোবাইলের স্ক্রিনে ওয়ালপেপারে সেট করে নিতে পারেন অসাধারণ এক দৃশ্য মনছবি তিনি টাঙ্গাইলের দৃশ্য
বন্ধুরা এই যে ছবিটা দেখতে পাচ্ছেন এটা দিঘীরপাড় লজগাট বাকেরগঞ্জ খুবই অসাধারণ এই দিঘীরপাড় লঞ্চঘাটে একটি লঞ্চ এসে দাঁড়িয়েছেন এটা বাকেরগঞ্জে অবস্থিত এই নদীতে বলা হয় কর্ণফুলী নদী একটি অসাধারণ নদী ঢাকা থেকে এই বাকেরগঞ্জ আসার জন্য এই লাঞ্চে পানি পথে আসার ব্যবস্থা রয়েছে এই জায়গাটা দেখতে পাচ্ছেন ঘাটের দুই সাইডে বাঁশ গাছের ভরা এক অসাধারণ দৃশ্যমান একে বলা হয় দিঘীরপাড় বাকেরগঞ্জ লজগাট খুবই অসাধারণ এই কর্ণফুলী নদীর পাড়ে নদীর প্রাকৃতিক সৌন্দর্য একটি অসাধারন এবং দৃশ্যমান বাংলাদেশে অনেক নদী আছে তার ভিতরে একটি বৃহত্তম নদী কর্ণফুলী নদী তাই বন্ধুরা এই বাকেরগঞ্জ ঘাট একটি অসাধারন এবং ওমান ঘাট কর্ণফুলী নদীর উপরে এই ঘাটতি আমাদের কাছে খুবই প্রিয় এবং অসাধারণ তাই বন্ধুরা মিলে এই ছবিটা আমার কাছে খুবই ভালো লেগেছে তাই নিশ্চয়ই তোমাদের এই ছবিটা খুবই ভালো লাগবে তাই ভালো লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করবেন
বিকালবেলা পড়ন্ত বিকালের বাউফল থেকে বাউফল নড়াইল থেকে ঢাকার উদ্দেশ্যে রওনা দিচ্ছেন বন্ধন বন্ধন 5 একটি জাহাজ তাই বন্ধুরা এই জাহাজের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আর জাহাজটি বাউফলের নুরাই থেকে ঢাকায় আসার জন্য গন্তব্য ঢাকা সদরঘাট সদরঘাট আসার জন্য কত স্পিডে চলাচল করছে এই জাহাজটি দেখতে পাচ্ছেন নদীর পানির ভাগ হয়ে চলে যাচ্ছে এই জাহাজ এবং দুই সাইডে সবুজে ঘেরা বাংলাদেশ প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের এক অপরূপ সৌন্দর্যের বাংলাদেশ আমাদের কাছে খুবই প্রিয় এক বাংলাদেশ তাই এই নদীর সাইডে কূলে সেই বাউফল নদীর কোল গ্যাস একটি অসাধারণ কোল ঘেঁষে বয়ে চলা একটি অসাধারণ দৃশ্য ছবি তাই বন্ধুরা
নুরাই স্থান থেকে সদরঘাটে যাবেন এই জাহাজটি বন্ধন পাস তাই নিশ্চয়ই আপনাদের এই বন্ধন পাস জাহাজটি কালার ডিজাইন এবং এর গতিবেগ চলার দৃশ্য সব মিলিয়ে অসাধারণ তাই সব মিলিয়ে ছবিটা আমার খুবই ভালো লেগেছে তা আপনাদের যদি ভালো লেগে থাকে তাহলে লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করবেন
বহরমপুর থেকে কাশিয়াডাঙ্গা পর্যন্ত পিলিয়ার এবং কারেন্টের খাম্বার মত লাইটিং করে দেয়া হয়েছে কত সুন্দর বিভিন্ন ডিজাইনের এই লাইটিং দিয়ে রাজশাহী শহর টা সাজানো হয়েছে তাই বন্ধুরা রাজশাহী শহর বাংলাদেশের একটি ডিজিটাল এবং উজ্জ্বল নক্ষত্র শহর এত সুন্দর করে এই রাস্তার সাইড দিয়ে দিয়ে দিয়ে দিয়ে তাতে বিভিন্ন ডিজাইনের লাইটিং দিয়ে সাজানো হয়েছে খুবই অসাধারণ তাই এই কাশিয়াডাঙ্গা পর্যন্ত এটি একটি দৃশ্যমান তারা যখন বিভিন্ন কালারের লাইটিং দিয়ে জ্বলতে থাকে তখন আমাদের কতই না ভাল লাগে তাই আলোর সজ্জায় সজ্জিত এই রাজশাহী শহরের 5 কিলোমিটার রাস্তা সুন্দর একটি অসাধারন এবং দৃশ্যমান সৌন্দর্য তাই বন্ধুরা রাজশাহী শহর আমাদের কাছে খুবই প্রিয় তাই আপনারা অবশ্যই রাজশাহী শহরে ঘুরে আসবেন দেখার মতো অনেক কিছুই আছে এই রাজশাহী শহরের প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের লীলাভূমি রাজশাহীতে আকাশের আকাশ নীল আকাশের নীলিমা এই দৃশ্যগুলো আরো সুন্দর হালকা হালকা জ্বলজ্বল করছে আর রাতের আধারে আলোর সজ্জায় সজ্জিত এই ছবিগুলো একটি অসাধারণ দৃশ্য হয়ে ওঠে তাই নিশ্চয়ই আপনাদের এই প্লেয়ারের ছবি এবং লাইটিং এর ছবি খুবই ভালো লাগবে ভাল লাগলে অবশ্যই লাইক  বা কমেন্ট করবেন আর আপনার যদি পছন্দ হয়ে থাকে আপনি আপনার মোবাইলের স্ক্রিনে ওয়ালপেপারে সেট করে নিবেন রাস্তার সাইডে বিল্ডিং বাড়ি কল কারখানা আরে প্লেয়ার এর উপরে লাইটিং দিয়ে সাজানো অসাধারণ বিউটিফুল
আমরা গতকাল রাতে আমাদের গ্রামের পাশে বাগডাঙ্গা গ্রামে মাহফিলে গিয়েছিলাম সেখানে খুবই সুন্দর জাঁকজমকপূর্ণ একটা মাহফিলের আয়োজন করা হয়েছিল উক্ত মাহফিলে সুন্দর সুন্দর গেট তৈরি করা হয়েছিল মাহফিলে দোকান দেওয়া হয়েছিল তার ভিতরে উল্লেখযোগ্য মিষ্টির দোকানের অসাধারণ একটা চিত্র আমাদের সামনে তুলে ধরলাম নিশ্চয় এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে মাহফিলে প্রবেশের পথে সুন্দর করে লাইটিং দিয়ে রাতের বেলায় একটা গেট তৈরি করে দেওয়া হয়েছে মাহফিলে সৌন্দর্য বৃদ্ধি করার জন্য মাহফিলে দোকান দেওয়া হয়েছে মানুষের খাদ্য কেনাকাটা করার জন্য খাবার খেলে টাকার জন্য এখানে দেখতে পাচ্ছেন প্রচুর পরিমাণ মানুষের ভিড় লেগে গিয়েছে এই মিষ্টির দোকানের জিলাপি আরো বিভিন্ন ধরনের প্রয়োজনীয় মিষ্টি বিক্রয় করা হয় সব ধরনের মিষ্টি এখানে তৈরি করা হচ্ছে এবং সেগুলো কিনে নিতে এসেছে প্রচুর পরিমাণ বেড়ে গিয়েছে তার একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম আমরা এই দোকান থেকে এক কেজি জিলাপি টা খাওয়া দাওয়া করেছি এবং নতুন করে তৈরি করে সেটা কাজে লাগে গরম গরম জিলাপি আমরা এই দোকান থেকে কিনেছে এবং খুবই ভালো লেগেছে নতুন তৈরি করার দৃশ্য নতুন তৈরি করছে আর মানুষের কাছে বিক্রি করছে খুবই সুস্বাদু এগুলো খেতে আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে মাহফিলের দোকানের অসাধারণ দৃশ্য মাহফিলে প্রবেশপথে নতুন গেটের অসাধারণ চিত্র অসাধারণ দৃশ্য মানুষের কাছে অত্যন্ত আকর্ষণীয় উঠেছেগতকাল রাতে আমাদের গ্রাম থেকে আমরা 8 থেকে 9 জন বন্ধুরা মিলে আমরা মাহফিলে অংশগ্রহণ করেছিলাম অনেক আনন্দ বিনোদন করেছি রাতের বেলা খাওয়া দাওয়া করেছি এবং সর্বশেষ মিষ্টি তৈরির দোকানে আপনারা দেখতে পাচ্ছেন এবং এখান থেকে মিষ্টি কিনে আমরা খাওয়া-দাওয়া করেছি অত্যন্ত জনপ্রিয় এবং আমাদের কাছে খুবই সুস্বাদু লেগেছে যে আপনাদের কাছে অনেক অনেক ভালো লাগবে মাহফিলে মিষ্টির দোকানের অসাধারণ চিত্র গ্রামের মানুষেরা এই দোকান থেকে মিষ্টি নিয়ে যাচ্ছে খাওয়ার জন্য
বাজারের ভিতরে একটি পানের দোকানের ছবি দেখতে পাচ্ছেন এখানে সুন্দরভাবে বিভিন্ন কোয়ালিটির পান বিক্রি করে থাকেন এখানে সাদা পান এবং হরেক রকমের পান বিক্রি করে থাকেন আমাদের কাছে খুবই প্রিয় এবং খুবই অসাধারণ এবং খুবই দেশপ্রাণ আমরা খুবই পছন্দ করে থাকলে কারণ আমাদের কাছে খুবই প্রিয় তাই দেখতে পাচ্ছেন মাহফিলের বাজারে একজন পানের দোকান দিয়েছেন আর এখানে বিভিন্ন মসলা দিয়ে তৈরি করছেন তাই মাহফিলে যে পান খাওয়ার সময় এই ছবিটা তোলা হয়েছিল অসাধারণভাবে এই ছবিটা তোলা হয় তাই বন্ধুরা আপনাদের এই পানের দোকানের ছবিটা খুবই ভালো লাগবে আগামীকালকে এই ছবিটা তোলা হয় তাই বন্ধু আমার কাছে খুবই প্রিয় এবং অসাধারণ লেগেছে এই পানের দোকানের ছবি একটি দৃশ্যমান এবং অসাধারণ আমাদের কাছে খুবই প্রিয় এবং খুবই অসাধারণ তাফসিরুল কোরআন মাহফিল এর একটি অসাধারণ দৃশ্য তাই আপনাদের নিশ্চয়ই এই ছবিটা খুবই ভালো লাগবে ভাল লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আমার চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করুন
বাংলাদেশের ঐতিহ্যবাহী জেলা সিলেট জেলা সিলেট জেলার নগরীর যানজট মুক্ত রাখার জন্য একটি অসাধারণ মধ্যমা এর রাস্তা তৈরি করা হয়েছে এই যে দুইটা রাস্তার ছবি বন্ধুরা আপনাদের সামনে তুলে ধরছি একটি অসাধারণ দৃশ্যমান এই ছবিটা সিলেট নগরীর ব্যস্ততম শহর এর প্রাকৃতিক সৌন্দর্য এবং সন্ধ্যার পরে আলোকসজ্জায় সজ্জিত এই রাস্তার দৃশ্য গুলো একটি অসাধারন বাংলাদেশের সিলেট বিমানবন্দরের লন্ডন থেকে সোজা বিমান এই সিলেটে আসেন তাই বিশ্বের দ্বিতীয় লন্ডন বলা হয় বাংলাদেশের সিলেট জেলা সিলেট নগরী আমাদের কাছে খুবই প্রিয় নগরী এবং খুবই অসাধারণ বন্ধুরা আপনাদের যদি পছন্দ হয়ে থাকে তাহলে অবশ্যই অবশ্যই আপনারা সিলেট জেলা ঘুরে আসবেন একটি অসাধারণ বৃহত্তম জেলা এই ব্যস্ততম শহর শহর আমাদের কাছে খুবই প্রিয় শহর সিলেট শহর তাই এই সিলেট আমরা খুবই করেথাকি আরে সিলেট শহরের যানচলাচল বিল্ডিং বাড়ি কল কারখানা সব মিলিয়ে ছবিটা অসাধারণ এবং আপনার যদি ভালো লাগে আপনি আপনার মোবাইলের স্ক্রিনের সিলেট শহরের নগরীর প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের ছবি আঁকড়ে ধরে স্ক্রিনশট দিতে পারেন তাই অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আমার চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করুন
আমাদের বাড়ির পাশেই বিশাল বড় একটি বিল রয়েছে এই বিলে কৃষকের ফসলের চাষ করে থাকে তাই কখনো কখনো ধান আবার কখনও কখনও কম আবার কখনও কখনও সরিষা লাগিয়ে থাকে খুবই অসাধারণ এবং খুবই দৃশ্যমান তাই বন্ধুরা আমাদের বাড়ির পিছনে যে বিল টা দেখতে পাচ্ছেন এই বিলের উপরে ধানের ফসলে পানি দেয়ার জন্য একটি মেশিন লাগানো হয়েছে খুবই অসাধারণ মেশিন থেকে কি সুন্দর করে পানি উঠছে খুবই অসাধারণ এই পানি উডার ছবি মাটির তলা থেকে তলদেশ থেকে পানি নিয়ে মেশিন এর উপরে রাখেন এই ছবিটা খুবই অসাধারণ
ফসলের জমিতে পানি দেওয়ার দৃশ্যটা একটি অসাধারণ দৃশ্যমান ছবি তাই বন্ধুরা আপনাদের যদি এই ছবিটা ভালো লেগে থাকে অবশ্যই অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করবেন আর ধানের ক্ষেতের ফসল আমি আপনাদের যদি ভালো লেগে থাকে তাহলে আপনি আপনার মোবাইলের স্ক্রিনে ওয়ালপেপার সেট করে নিতে পারেন গোবিন্দপুর গ্রামের পশ্চিম বিলের ছবি একটি অসাধারণ দৃশ্য
অপরূপ নিদর্শন গাজনার বিল পাবনা জেলার এই গাজনার বিল এর মাঝখান দিয়ে অসাধারন একটি রাস্তা বহমান এই কাঁচা রাস্তা টা একটি দৃশ্যমান এবং অসাধারণ রাস্তার এই গাড়ির বিশাল বড় একটি বৃহত্তম বিল বাংলাদেশের ঐতিহ্যবাহী জেলা পাবনা জেলা পাবনা জেলার গাজনার বিল এর একটি অসাধারণ দৃশ্যমান এবং একটি স্থাপনা রয়েছে সেটা হচ্ছে বাংলাদেশের প্রতিটি জেলার মানুষেরা গ্রামগঞ্জের মানুষেরা এবং অজ পাড়াগাঁয়ের মানুষেরা সবাই জানে বাংলাদেশের সবচেয়ে বৃহত্তম বিল পাবনা উপজেলা গাজনার বিল তাই বন্ধুরা এই কাজ নাবিলের মাঝখান দিয়ে বয়ে চলা একটি কারণ এবং অসাধারণ এবং দৃশ্যমান তাই নিশ্চয়ই আপনাদের এই গাজনার বিল এর প্রাকৃতিক সৌন্দর্য খুবই ভাল লাগবে তাই আপনাদের যদি পাবনা উপজেলা রেলের রাস্তা আর ফসলের জমি আর প্রাকৃতিক সৌন্দর্য ভালো লেগে থাকে তাহলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করবেন এই কাজ এবং আকাশের আকাশের হালকা রোদের তাপে একটি দৃশ্যমান হয়ে উঠেছে তাই বন্ধুরা আপনাদের খুবই ভালো লাগবে ভাল লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করবেন এই কাজ নাই বিল পাবনা বাংলাদেশ
গ্রামীন পরিবেশের একটি ছবিটা পাবনা উপজেলার একটি অজ পাড়াগাঁয়ের গ্রাম এই গ্রামের এই ছবিটা একটি অসাধারণ দৃশ্যমান ছবি তাই বন্ধুরা এই পাবনা উপজেলার একটি অজ পাড়াগাঁয়ের গ্রাম গ্রামটির নাম ছাগলনাইয়া গ্রাম তাই এই ছাগলনাইয়া গ্রামের একটি ছোট্ট কাঁচা রাস্তার দৃশ্য রাস্তার দুই সাইডে কত সুন্দর লম্বা লম্বা গাছ আর প্রাকৃতিক সৌন্দর্য খুবই অসাধারণ মনটা কেড়ে নেয় খুবই দৃশ্যমান তাই এ রাস্তার আকাশের আকাশ নীলা আর রাস্তা আর প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আর পাবনা উপজেলার ছাগলনাইয়া গ্রামের রাস্তাটা একটি দৃশ্যমান এবং অসাধারন ছিল তাই বন্ধুরা এ রাস্তার প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আর আকাশের আকাশ নীলা আমাদের কাছে খুবই প্রিয় এবং খুবই দৃশ্যমান তাই আপনাদের যদি এই ছাগলনাইয়া গ্রামের রাস্তার ছবি পছন্দ হয়ে থাকে তাহলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করবেন আপনার যদি পছন্দ হয়ে থাকে আপনি আপনার মোবাইলের স্ক্রিনে ওয়ালপেপারে সেট করে নিতে পারেন খুবই অসাধারণ এবং দৃশ্যমান একটি ছাগলনাইয়া গ্রামের রাস্তার প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের ছবি
আমার একজন প্রিয় বন্ধু আজকে তার পায়ে একটু ব্যথা পেয়েছিল খুবই প্রচন্ড ব্যথা পেয়ে অনেক কষ্ট করে আমি তাকে ডাক্তারখানায় নিয়ে গিয়েছিলাম ডাক্তারখানায় নিয়ে গিয়ে আমিতাকে সুন্দর করে ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী চিকিৎসা দিয়ে পায়ে ব্যান্ডেজ করে বাসায় নিয়ে আসে তার একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম ডাক্তারখানায় ডাক্তার তাকে সুন্দর করে চিকিৎসা দিচ্ছেন যেভাবে চিকিৎসার দিলে খুবই দ্রুত পায়ের ব্যথা সেরে যায় খুবই দ্রুত ভালো হয়ে যায় সেই চিকিৎসা প্রদান করছে আমার অনেক প্রিয় একজন বন্ধু আমি মানুষের বিপদ আপদে সাহায্য সহযোগীতা করে থাকে মানুষের পাশে দাঁড়ানো আমার একান্ত দায়িত্ব এবং কর্তব্য আমি মানুষের সাহায্য করতে পেরে অনেক অনেক ভালো লাগে নিজের মনের ভিতরে আমি তাকে আমার নিজের সাইকেলে করে আমি বাজারে নিয়ে গিয়ে ডাক্তারের কাছে থেকে খুব সুন্দর করে তার পায়ে ব্যান্ডেজ করে নিয়ে এসেছি এবং পায়ে ব্যান্ডেজ করার একটা অসাধারণ মুহূর্ত আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম পায়ে ব্যথা পেলে অনেক অনেক কষ্ট হয় একসঙ্গে খেলা করতে গিয়ে তার পায়ে ব্যথা লেগে ছিল এজন্য আমরা তাকে কিছু আর্থিক সাহায্য সহযোগিতা করে আমি তাকে ডাক্তার-খানা নিয়ে চিকিৎসার ব্যবস্থা করেছি তার একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করতে পেরে অনেক অনেক খুশি এবং আনন্দিত নিশ্চয়ই আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমার বন্ধুকে আমি সাহায্য সহযোগিতা করতে পেরে খুবই খুশি এবং আনন্দিত এবং তার চিকিৎসার অসাধারন মুহুর্ত আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন দুইজন ডাক্তার তাকে সুন্দর করে চিকিৎসা দেওয়ার ব্যবস্থা করছে যেভাবে চিকিৎসা দিলে দ্রুত ঠিক হয়ে যায় সেভাবে চিকিৎসা দেওয়ার ব্যবস্থা করছেন এবং খুবই ভালো লাগছে আমার আমি আমার বন্ধুকে সাহায্য সহযোগিতা করতে পেরে আমি যতটুকু সম্ভব আমি আমার বন্ধুর জন্য কাজ করেছি সাহায্য-সহযোগিতা দিয়েছি এবং আমি তাকে সব সময় নিজের কাছে রেখে তার প্রয়োজনীয় যত প্রকারের জিনিস ঔষধ সবগুলো আমি এনে দিয়েছি এবং খুবই সুন্দর একটা মুহূর্ত আমি উপভোগ করেছি এখন আমার বন্ধুকে আমি উপকার করতে পেরে আমি মানুষের উপকার করতে পারলে আমার খুবই ভালো লাগে নিশ্চয়ই এই অসাধারণ দৃশ্যটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমার বন্ধুর পায়ের ব্যান্ডেজ লাগানোর একটা অসাধারন মুহুর্ত ডাক্তারখানায় আমার বন্ধুর নাম মহসিন আমরা একসঙ্গে ছোটবেলা থেকে লেখাপড়া করেছি,❤️❤️❤️👌👌
কিরে একটি ফেরিঘাট এই ফেরিঘাট তা নতুন করে উদ্বোধন করা হবে কারণ এই ফেরিঘাট টা এখান থেকে 20 বছর আগে এই আরিচা থেকে কাজিরহাট ফেরি চলাচল করতো কিন্তু 20 বছর যাবত এই ফেরি ঘাট বন্ধ ছিল তাই নতুন করে এই মাসে এই ফেরিঘাট উদ্বোধন করবেন খুবই অসাধারণ করে নতুন করে সাজিয়েছেন এই কাজির হাট ফেরিঘাট থেকে কাজিরহাট এই ফেরিঘাট খুবই অসাধারণ বন্ধুরা এই আরিচা ফেরিঘাট থেকে কাজিরহাট ফেরি ঘাটে যাওয়ার জন্য এই পদ্মা নদীর উপর দিয়ে যে ফেরিগুলো চলাচল করবে এখান থেকেই চলাচল করবে এই গাড়ি আসার জন্য কি সুন্দর করে পাথর দিয়ে বালির বস্তা দিয়ে কত সুন্দর রাস্তা করেছেন তাই পদ্মা নদীর প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আঁকড়ে ধরার জন্য একটি নতুন করে উদ্বোধন করা হচ্ছে তাই বন্ধুরা এই পদ্মা নদী একটি অসাধারণ দৃশ্যমান নয় এটা একটি বাংলাদেশের বৃহত্তম নদী পদ্মা নদী পথে প্রান্তরে কাজির হাট ফেরিঘাট এবং আরিচা ফেরিঘাট থেকে অসাধারণ দৃশ্যমান হয়ে উঠেছে তাই আপনাদের নিশ্চয়ই ছবিটা খুবই ভালো লাগবে ভাল লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করবেন
এখানে আমি আপনাদের সামনে যে ছবিটি উপস্থাপন করছি শেষ হবে টি হল আমাদের গ্রাম বাংলার একটি অসাধারণ দৃশ্য এখানে আপনারা দেখতে পাবেন অনেকগুলো গাছপালা জমি জায়গা এবং একটি ছোট্ট ঘর এখানে যে ছোট্ট ঘর আপনারা দেখতে পাচ্ছেন এই ছোট্ট ঘরটি হলো মেশিনঘরএই ঘরের ভিতরে রয়েছে শেষ জমিতে সেচ দেওয়ার জন্য একটি মেশিন যে মেশিন দিয়ে প্রতিনিয়ত জমিতে সেচ দিয়ে জমিতে পানি দেওয়া হয় এবং তার এই দৃশ্য দেখতে অনেক সুন্দর দেখা যাচ্ছে এই ঘরের ভিতরে রয়েছে একটি ছোট্ট মেশিন এবং এখানে যে জমি গুলো দেখতে পাচ্ছে নিঝুম গুলোতে আমরা প্রতিদিন এই মেশিন দিয়ে পানি দিয়ে থাকি এবং তারই একটা দৃশ্য এখানে দেখা যাচ্ছে এই দৃশ্যটি দেখতে অনেক সুন্দর এবং আমাদের গ্রাম বাংলার একটি অসাধারণ দৃশ্য আপনারা দেখতে পাচ্ছেন এই দৃশ্যটি দেখতে অনেক সুন্দর দেখা যাচ্ছে আমাদের গ্রাম অঞ্চলের একটি ছোটখাটো আই এর মাধ্যম হলো ধান লাগানো যে ধান লাগিয়ে আমরা ধানগুলো বাজারে বিক্রি করতে পারি এবং তা থেকে অনেক টাকা আয় করতে পারি আমরা এই দৃশ্যটি আপনারা দেখতে পাচ্ছেন কিছু গানের দৃশ্য এবং একটি মেশিনঘর এই দৃশ্যটি দেখতে অনেক সুন্দর দেখা যাচ্ছেআমাদের বাংলাদেশে এভাবেই জমিতে সেচ দেওয়া হয় মেশিন ব্যবহার করে এবং মোটর ব্যবহার করে এই দুই পদ্ধতিতে জমিতে সেচ দেওয়া হয় এবং তারই একটা দৃশ্য আপনারা দেখতে পাচ্ছেন এবং আমাদের বাংলাদেশে হলো কৃষিপ্রধান দেশ আমাদের বাংলাদেশের ধান বেশি লাগানো হয়
বরিশালের উদ্দেশ্যে এই জাহাজটি রওনা দিয়েছেন ঢাকার ওপর দিয়ে তাই শুভকামনা সবার জন্য রাতের আধারে নদীর উপর দিয়ে চলেছে এই জাহাজটি প্রায় দেড় হাজার যাত্রী নিয়ে ঢাকা শহর থেকে পদ্মার উপর দিয়ে ডাকাতিয়া নদীর উপর দিয়ে বয়ে চলা এই বরিশালে যাওয়ার জন্য এই জাহাজটি তার গন্তব্যে চলছে রাস্তায় জাহাজের আলোকসজ্জায় সজ্জিত বিভিন্ন ডিজাইনের আলো দিয়ে জাহাজটি এক অসাধারণ দৃশ্য ছবি উঠেছে তাই বন্ধুরা আপনাদের নিশ্চয়ই প্রাকৃতিক সৌন্দর্য খুবই ভালো লাগবে দেখার মত একটি ছবি নিশ্চয়ই তোমাদের এই ছবিটা ভালো লাগে তাই তোমাদের যদি সুন্দর্য ভালো লেগে থাকে এই জাহাজ নদী আর আকাশ নীলা আর বরিশাল শহরের দৃশ্য নিশ্চয়ই দৃশ্যমান আপনার যদি পছন্দ হয়ে থাকে আপনি আপনার মোবাইলের স্ক্রিনে ওয়ালপেপারে সেট করে নিন
সাতক্ষীরা শহরের প্রথম সাতক্ষীরা সেকেন্ড অফিসার এর মোরের রাস্তার দক্ষিণ সাইডে একটি বিশাল বড় গাছে গাছে শত শত বাঁদর ঝুলে আছে এই গাছে প্রচুর পরিমাণ বাদুর ঝুলতে থাকে কারণ এই বাদুর আমাদের খুবই প্রিয় এবং অসাধারণ কারণ এই বাঁদরগুলো প্রথম ছাত্রীরা সেখানে বছরের এই সৌন্দর্য অসাধারণ সৌন্দর্য এই গাছের প্রায় 80 বছর ধরে বাদুর ঝুলিতেছে কয়েক হাজার হাজার বাদর গাছে ঝুলতে থাকে না তাই প্রধান শর্ত দিয়ে সাতক্ষীরা শহরের সময় এই ছবিটা তোলা হয়েছিল খুবই দৃশ্যমান এবং অসাধারণ একটি ছবি তাই আপনাদের যদি এই ছবিটা ভালো লেগে থাকে তাহলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করবেন তাই বন্ধুরা এই গাছের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আর আকাশের আকাশ নীলা আর হাজার হাজার বাদুরের ভিলেজ এক অসাধারণ দৃশ্য ফুটে উঠেছে তা নিশ্চয়ই তোমাদের ভালো লাগবে আপনার যদি ভালো লেগে থাকে আপনি আপনার মোবাইলের স্ক্রিনে ওয়ালপেপারে সেট করে নিতে পারেন খুবই অসাধারণ দৃশ্যমান একটি ছবি
সিঙ্গারবিল রুদাঘরা ইউনিয়ন ডুমুরিয়া উপজেলার এই রুদাঘরা ইউনিয়নের সিংগার বিলের বিশাল বড় একটি খাল রয়েছে এইখানে জেলেরা মাছ ধরেন তাই দেখতে পাচ্ছেন সিংগার বিলের যেখানে রয়েছে খালের সাইটে নৌকাগুলো বাধা আছে এবং অনেক নৌকায় জেলেরা মাছ ধরার জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছে একটি অসাধারণ ছবি খুলনা বিভাগের ডুমুরিয়া উপজেলার ইউনিয়নের একটি অসাধারণ ছবি একটি দৃশ্যমান বিলে প্রচুর পরিমাণ মাছ আছে তাই কৃষকেরা এই মাছ ধরে এবং জেলেরা মাছ ধরেন তাই খালের উপরে আকাশের আকাশ লেয়ার প্রাকৃতিক সৌন্দর্য একটি অসাধারণ দৃশ্য মাংস তাই বন্ধুরা এই সিঙ্গারবিল আমার প্রিয় একটি গ্রাম এবং খাল অসাধারণ দৃশ্য প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আত্মীয়দের বাসায় বেড়াতে যাওয়ার পরে এই ডুমুরিয়া উপজেলার সিংগার বিলের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য দেখতে ভাল লাগছিল তাই আপনাদের যদি ভালো লেগে থাকে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করুন
মাগুরা এবং ঘোনা ইউনিয়ন এর মধ্যকার একটি বাজারের ছবি এটা একটি বিশাল বড় বাজার এবং মার্কেট এটা বাংলাদেশের দক্ষিণে খুলনা বিভাগের ডুমুরিয়া উপজেলার সাইটে একটি ইউনিয়ন মাগুরা ঘোনা ইউনিয়ন এর মধ্যকার এই বাজারটি একটি অসাধারণ বাজার এই বাজারে রাতের আধারের একটি ছবি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম এই বাজারের উপর দিয়ে চলে গেছে আর মেইন রোডের দুই সাইডে দোকানপাট কত কিছু নয় রয়েছে এই মাগুরাঘোনা বাজারের মাঝখানে খুবই দৃশ্যমান তাই সন্ধ্যার পরে আলোকসজ্জায় সজ্জিত মাগুরাঘোনা বাজারের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য অসাধারণ তাই আমার এই ছবিতে দেখতে পাচ্ছেন কিছু ছেলেরা মোবাইলে খেলাধুলো করছেন এবং একটি ছবিতে লাইটিংয়ে ভরা গাড়ি-ঘোড়া যানবাহন চলছে তাই আকাশের আকাশ নীলা সন্ধ্যার পরে আঁধারে আলো যখন মোমবাতির মতো জ্বলতে থাকে তখন এই মাগুরাঘোনা ইউনিয়নের বাজারের দৃশ্য তেমনই হয়েছে খুবই সুন্দর এবং অসাধারণ দৃশ্য মানুষ তাই আপনাদের এই ছবিটা খুবই ভালো লাগবে ভাল লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আপনার যদি এই ছবিগুলো ভালো লেগে থাকে তাহলে আপনি আপনার মোবাইলের স্ক্রিনে ওয়ালপেপারে সেট করে নিবেন খুবই অসাধারণ দৃশ্যমান একটি ছবি
ডুমুরিয়া উপজেলার জিয়ালতলা গ্রামের সুন্দর একটি সাইক্লোন বাই স্কুল তৈরি করা হয়েছে খুবই অসাধারণ এই নতুন করে সংস্কার করা হয় এই সাইক্লোন আর প্রাইমারি স্কুলটা এটা ডুমুরিয়া উপজেলার শিবপুর ইউনিয়নের জিয়ালতলা গ্রামে এই সাইক্লোন সেন্টার এবং প্রাইমারি স্কুল তৈরি করা হয়েছে এই বিল্ডিংটা কতইনা অসাধারণ লাগছে দেখতে পাচ্ছেন এই বিল্ডিং তিন তালা একটি ভবন বিশিষ্ট কতইনা অসাধারণ এত সুন্দর কালার ডিজাইন এবং রং করা বিশ্ব সাধারন বিলের মাছ খানে কৃষকের ফসলের জমিতে একটি মাঠের ভিতরে এই সাইক্লোন সেন্টার এবং জিয়ালতলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে ছবি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম খুবই অসাধারণ এই ডুমুরিয়া উপজেলার শিবপুর ইউনিয়নের জিয়ালতলা গ্রামের জেলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের একটি অসাধারণ দৃশ্য ছবি তাই বন্ধুরা এই আকাশের আকাশ নীল রোদের তাপ এর মাঝখানে সাইক্লোন সেন্টার এবং অসাধারণ একটি স্কুলের ছবি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম আপনার যদি ভালো লেগে থাকে আপনি আপনার মোবাইলের স্ক্রিনের ওয়ালপেপারে সেট করে নিবেন খুবই অসাধারণ এবং দৃশ্যমান
গ্রামীণ সৌন্দর্য প্রতিটা মানুষের ভালো লাগে, গ্রামের সৌন্দর্য টা অনেক বেশি আকর্ষণীয় এবং রোমাঞ্চকর হয়ে থাকে গ্রাম মানেই প্রাকৃতিক সৌন্দর্য গ্রাম মানেই আকর্ষণীয় ভালোবাসা সব মিলিয়ে অসাধারণ চিত্র আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম আমাদের গ্রামের একটা দৃশ্য আজ আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করতে যাচ্ছি এখানে আপনারা দেখতে পাচ্ছেন আমাদের সেই জনপ্রিয় রাস্তা যেখানে গ্রামের সৌন্দর্য দিয়ে ভরপুর এবং রাস্তার দুই ধার দিয়ে প্রচুর পরিমাণ খেজুর গাছ আপনারা দেখতে পাচ্ছেন রাস্তাটা অনেক সুন্দর প্রাকৃতিক সৌন্দর্যময় মাঠে-ঘাটে সবুজ শ্যামল ধানক্ষেত মাঠের পর মাঠ সবুজ হয়ে আছে তারই চিত্র, দেখতে পাচ্ছেন আরো দেখতে পাচ্ছেন রাস্তায় দাঁড়িয়ে আছে আমার চাচাতো ভাই নাম মোঃ কামাল হোসেন তিনি অনার্স সেকেন্ড ইয়ারে পড়েন আমরা একসঙ্গে লেখাপড়া করি অনেক সুন্দর দেখতে আমাদের গ্রামেই বাড়ি আমাদের বাড়ির পাশেই বাড়ি খুব সুন্দর একটা মুহূর্ত অনুভব করেছিলাম গ্রামীণ সৌন্দর্যটা আমরা সবাই একসঙ্গে রাস্তায় দাড়িয়ে দাড়িয়ে গল্প করছিলাম এবং সেই সময়ের একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম নিশ্চয়ই আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে এই প্রাকৃতিক সৌন্দর্য দেখে এবং আমার চাচাতো ভাইয়ের অসাধারণ দৃশ্য দেখে গ্রামের প্রতিটা মানুষ আমাদেরকে অনেক অনেক ভালোবাসে এবং আমাদের এই প্রাকৃতিক সৌন্দর্য দেখার জন্য বিভিন্ন স্থান থেকে মানুষেরা বিকালে আমাদের এই রাস্তায় চলে আসেন রাস্তায় অনেক সুন্দর দৃশ্য আপনারা দেখতে পাচ্ছেন খেজুর গাছ গুলো অনেক সুন্দর খেজুর-গাছের-রস হচ্ছে শীতের মৌসুমে আমরা রস খেয়ে থাকি এই গাছগুলো থেকে রস খুবই মিষ্টি খুবই ভালো লাগে খেতে বছরে একবার করে পাওয়া যায় সেটা আমাদের গ্রামেই হয় এজন্য আমাদের আর কোথাও যেতে হয় না, রস খাওয়ার জন্য এবং আমরা আমাদের বাড়ির কাছে পেয়ে যাচ্ছে সবকিছু অনেক সুন্দর একটা মুহূর্ত আমরা উপভোগ করি এবং শীতের মৌসুম টা অনেক অনেক আনন্দ বিনোদনের মধ্যে আমরা সময় নিশ্চয়ই আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের গ্রামের অসাধারণ চিত্র এবং আমার চাচাতো ভাইয়ের রাস্তার মাঝে দাঁড়িয়ে থাকা দৃশ্য♥️♥️❤️❤️ স্থানঃ সাতক্ষীরা জেলার ব্রহ্মরাজপুর ইউনিয়নে জেয়ালা গ্রামে অবস্থিত ,
একটি গ্রামে যাওয়ার জন্য দুইটি রোড করা হয়েছে খুবই অসাধারণ ভাবে এটা একটি অসাধারণ কারণ ডুমুরিয়া উপজেলার 6 নং মাগুরা ইউনিয়নের এই একটিমাত্র গ্রাম এই গ্রামের যাওয়ার জন্য কি প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের রোড তৈরি হয়েছে কারণ বন্ধুরা এই যে ছবিটা আপনারা দেখতে পাচ্ছেন এই ছবিটা একটি অসাধারন এবং দৃশ্যমান ছবি দেখতে পাচ্ছি না একজন মানুষ সাইকেল চালিয়ে যাচ্ছেন কিন্তু তার সামনে একটি বটগাছ রয়েছে এই বটগাছ তার বয়স প্রায় 70 বছরের প্রথম একটি বটগাছের নিচে রাস্তার মানুষ যখন যায় তখন এখানে ছাউনিতে থেকে যায় তাই সবসময় ছবিটা যেন হঠাৎ একটি দৃষ্টান্ত হয়ে দাঁড়িয়েছে কতইনা অসাধারণ এবং প্রাকৃতিক সৌন্দর্য এবং আরো ছবি আছে দেখতে পাচ্ছেন একটি তাল গাছে তাল গাছের জন্য আলোকসজ্জা অসাধারণ ডিজাইন হয়েছে তাই মাগুরা ইউনিয়নের এই রাস্তা প্রাকৃতিক সৌন্দর্য খুবই দৃশ্যমান খুবই অসাধারণ তাই নিশ্চয়ই তোমার এই ছবিগুলো ভালো লাগবে ভাল লাগলে অবশ্যই আপনি আপনার মোবাইলের স্ক্রিনে ওয়ালপেপারে সেট করে নিতে পারেন অসাধারণ দৃশ্যমান একটি ছবিটা
এ যেন এক প্রকৃতির অপরূপ সৌন্দর্য মন্ডিত দৃশ্য। বিশেষ করে দুই পাশে বাগান মূলত বাঁশের বাগান। এবং মাঝখান দিয়ে রাস্তা রাস্তা, যা দিয়েই একটি রাখাল গরুর গাড়ি নিয়ে যাচ্ছ। গরুর গাড়ি আমাদের ঐতিহ্যবাহী গাড়ি। এ গাড়ি এখন সেরকম আর দেখা যায় না। এক সময় গরুর গাড়ি একমাত্র আমাদের বাহন ছিল যাতায়াত ব্যবস্থা। এমন সুন্দর দৃশ্য চোখে দেখার মতো কত সুন্দর। প্রকৃতির মনোরম পরিবেশের মধ্যে সৃষ্টি হয়েছে অসাধারণ দৃশ্য যা দেখতে খুব ভালো লাগছে। এবং আমাদের জন্য মনমুগ্ধকর বটে। প্রকৃতির অপরূপ সৌন্দর্যের মধ্যে নিজেকে টিকিয়ে রাখতে পারি। এবং প্রকৃতিতে কোন রাজ্যের মধ্য দিয়ে আমরা ভালো সুস্থ-সুন্দর ভাবে থাকতে পারি। বিশেষ করে আমাদের জন্য প্রাকৃতিক অপরূপ দৃশ্য দেখার মত আশেপাশের সবুজে ঘেরা সুন্দর আসমান সুন্দর জমিন রয়েছে। যা সুন্দর লাগে দেখতে। প্রকৃতির অপরূপ প্রকৃতির সাথে মিশে।একজন রাখাল তার সর্বোচ্চ পরিশ্রমের মাধ্যমে গরু চরায়। এবং তার কষ্টের মাধ্যমে সকল বিভিন্ন জমিতে ফসল ফলাতে পারে। তাই তাদেরকে কোনদিন ছোট করে দেখলে হবে না। তাদের জন্য আজকে অনেক সুন্দর ভালো খেতে পারি প্রকৃতির অপরূপ সৌন্দর্যের মধ্যে টিকে থাকতে গেলে অনেক টাকার প্রয়োজন হয় তাদেরকে সম্মান করতে হবে। তাদের সম্মান করার মধ্য দিয়ে আমরা ভাল থাকব আশা করি প্রত্যেকটি ছবিটি দেখে সেটা উপলব্ধি করতে পেরেছেন।
বাংলাদেশের ঐতিহ্যবাহী জেলা রাঙ্গামাটি রাঙ্গামাটি পিকনিক স্পট আছে অনেকগুলো দর্শনীয় স্থান আছে যেমন ঝুলন্ত ব্রিজ টিং টিং পার্ক চাকমা রাজার বাড়ি এবং ইত্যাদি ইত্যাদি তাই এই পাহাড় কেটে কৃষকরা যখন জুম চাষ করে থাকেন তখন এটাও একটি দর্শনীয় স্থান হয়ে গেছে কারণ কৃষকেরা এই জুম চাষ করার দৃশ্যটা কতদিন অসাধারণ এই ছবিটা তুলতে গেলে দেখলে মনে হয় প্রিন্টিং রং তুলি দিয়ে আঁকা ভাস্কর্যের ছবি অথবা কোন একটি ছবি তাই এই প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আর জুম চাষ করা কৃষকের ধন্যবাদ জানিয়ে এই ছবিটা অসাধারণ লেগেছে কারণ এই কৃষকের পাহাড়ে জুম চাষ করার দৃশ্য কতইনা দৃশ্যমান এত সুন্দর ঘরের ডিজাইন করে জুম চাষ করেছেন আমাদের কাছে খুবই প্রিয় ভিটামিন জাতীয় খাবার খুবই অসাধারণ সৌন্দর্য নিশ্চয়ই তোমাদের ভাল লাগে তাই ভালো লাগার মতো একটি অসাধারণ দৃশ্য তাই এই সব মিলিয়ে অসাধারণ প্রাকৃতিক সৌন্দর্য খুবই ভালো লেগেছে কারণ রাঙামাটি শহরের প্রাণকেন্দ্রে কৃষকেরা মাথার ঘাম পায়ে ফেলে এই ছবিটা আমার কাছে খুবই ভালো লেগেছে নিশ্চয়ই তোমাদের ভালো লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবে
রাজশাহী শহরের রাস্তার উপরে সুন্দর করে ঝাড় বাতি দিয়ে আলোর সজ্জায় সজ্জিত করে রাখা হয়েছে রাজশাহী শহর একটি ডিজিটাল শহরে রূপান্তরিত করা হয়েছে বাংলাদেশের সবচেয়ে বৃহত্তম শহর রাজশাহী রাজশাহী শহরের রাত্রে ঝাড়বাতির আলোয় আলোকিত হওয়ার দৃশ্য গুলো অসাধারণ তাই বন্ধুরা নিশ্চয়ই আপনাদের এই ঝাড়বাতির আলোয় আলোকিত হওয়ার রাস্তা এবং দুই কালারের রাস্তার আলোর ডিজাইন খুবই অসাধারণ রাস্তায় সন্ধ্যার পরে যানবাহন চলাচল করার দৃশ্য এবং অসাধারণ দৃশ্য ছবি এবং রাতের আধারে হালকা হালকা ঘন কুয়াশার ভিড়ে আলোয় আলোকিত হয়ে যাওয়া রাস্তার দৃশ্য টা কত অসাধারণ তাই বন্ধুরা রাজশাহী শহরের এই রাস্তাটা আমার কাছে খুবই প্রিয় এবং অসাধারণ ভালো লাগে ভালো লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব
একসাথে পিকনিক করে খাওয়ার অসুবিধা সুবিধা খুবই অসাধারণ কারণ বন্ধু-বান্ধব মিলে যখন একসাথে পিকনিক করে আমরা বনভোজন করে খায় তখন আমাদের খুবই ভালো লাগে কারণ বন্ধুরা আমাদের খাওয়া-দাওয়া খুবই প্রিয় একটি অসাধারণ দৃশ্যমান ছবি তাই দেই আমার বড় ভাইরা আজকে রাতে একসাথে বনভোজন করে খাওয়া- দাওয়া করছেন কতইনা দৃশ্যমান একটি অসাধারণ ছবি তাই এই যে ছবিটা দেখছেন নিশ্চয়ই আপনাদের ভালো লাগবে দেখতে পাচ্ছেন সামনে খিচুড়ি রান্না করা আছে একটি হাড়িতে এই খিচুড়ি আমার কাছে খুবই প্রিয় এবং খুবই অসাধারণ তাই আমার বড় ভাইয়েরা ভুনা খিচুরি খাওয়ার জন্যে স্তুতি নিচ্ছেন তাই এমন সময় একটি সেলফি তোলা হয়েছিল খুবই অসাধারণ এবং দৃশ্যমান ছবি এবং নিশ্চয়ই আপনাদের এই ছবিটা ভালো লাগবে কারণ আমাদের প্রিয় একটি অসাধারণ দৃশ্যমান খাবার এটা তাই বন্ধুরা সাতক্ষীরা শহরের থেকে প্রায় 10 কিলোমিটার দূরে গোবিন্দপুর গ্রামের আমার বড় ভাইরা রাত্রি বনভোজন করে পিকনিক করে খাওয়ার সময় এই ছবিটা তোলা হয় খিচুড়ি ভুনা খিচুড়ি এবং ভাইদের ছবির দৃশ্য অসাধারণ তাই সব মিলিয়ে ছবিটা খুবই অসাধারণ নিশ্চয়ই ভালো লাগবে ভাল লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আম ার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব
এখানে যে চিত্রটি আপনারা দেখতে পাচ্ছেন এই চিত্রটি দেখতে অনেক সুন্দর দেখা যাচ্ছে এখানে আপনারা দেখতে পাচ্ছেন একটি অসাধারণ দৃশ্য এখানে দেখা যাচ্ছে একটি পার্ক এই পার্কের দৃশ্য টি অনেক সুন্দর এবং এই পার্ক আমাদের বাংলাদেশের একটি অনেক সুন্দর পার্ক এই পার্কের অনেক ধরনের জিনিসপত্র খেলনার জিনিস পত্র তারপর পশু-পাখিও রয়েছে এই পার্কের দৃশ্য অনেক সুন্দর দেখা যাচ্ছেএখানে আপনারা দেখতে পাচ্ছেন একটি বড় দল না এইজন্য অনেক সুন্দর দেখা যাচ্ছে এবং এই দোয়াটি চারপাশ দিয়ে ঘরে এবং এই দোলনার চারিদিকে লোকজন বসে থাকে এবং সেটি ভোট দিলে এই তল্লাটে ঘোরে এ দৃশ্যটি দেখতে সুন্দর দেখা যাচ্ছেএখানে যে চিত্রটি দেখতে পাচ্ছেন একটি পার্কের একটা চিত্র এবং এই পার্কের চিত্রটি আসলে অনেক সুন্দর দেখা যাচ্ছে এবং এটি আমাদের বাংলাদেশের ভিতরে এর একটি পার্ক এবং এই পার্ক হল যশোর অঞ্চলের একটি পার্ক এই পার্কের অনেক সুন্দর একটি দৃশ্য আপনার এখানে দেখতে পাচ্ছেন এই দৃশ্যটি দেখতে খুব সুন্দর
সবুজ প্রকৃতির আমাদের এই গ্রাম তারই একটা অসাধারণ দৃশ্য আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের মধ্যে গড়ে ওঠা আমাদের এই গ্রাম আমাদের গ্রামের একটা সৌন্দর্য আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম গ্রামের মানুষেরা তারা ধান রোপন করেছে সবুজ প্রকৃতির ধান সবুজপাতা তারে একটা দৃশ্য তারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের মাঠের পর মাঠ অসাধারণ সবুজ দৃশ্য আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন আমাদের এখন বোরো ধানের সময় চলে এসেছে এটা মানুষের জীবনে একটা মূল্যবান সময় এইসময় মানুষেরা ধান রোপন করে এবং শীতের মৌসুমে বোরো ধান রোপন করতে হয় এই ধান রোপন করলে মানুষ এটা তাদের জীবনের একটা অনেক বড় সঞ্চয় তারা সফল করতে পারে এবং টাকা উপার্জন করতে পারে আশাকরি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে এই মাঠের পর মাঠ সবুজ প্রকৃতি আমাদের গ্রামের একটা দৃশ্য দেখে আমাদের গ্রামের যে প্রকৃতির সৌন্দর্য রয়েছে সেগুলো দেখে শেষ করতে পারবো না আমি আজ আমাদের একটা মাঠের দৃশ্য আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম যেটা অনেক সুন্দর লেগেছে আমার কাছে এবং বিকেল বেলায় যখন ঘুরতে গিয়েছেন অসাধারণ একটা দৃশ্য চোখে পড়ে এবং আমার এটা মন থেকে অনেক অনেক ভালো লেগে যায় এজন্য আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের সবুজ প্রকৃতির এই অসাধারণ দৃশ্য দেখে বাংলাদেশ যে দেশে রয়েছে গাছগাছালি সে দেশে রয়েছে প্রাণী মানুষের বসবাস সব মিলিয়ে অসাধারণ একটা দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো আমাদের গ্রামের মাটির একটা অসাধারণ দৃশ্য এটা প্রতিটা মানুষের ভালো লাগবে আমাদের এই গ্রামের অসাধারন দৃশ্য দেখে আমাদের মানুষেরা সবাই মিলেমিশে চলাফেরা করে সবাই একসঙ্গে মিলেমিশে চলাফেরা করতে ভালবাসে এবং সবুজ প্রকৃতির আমাদের এই মাঠের পর মাঠ আপনারা আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমার এই দৃশ্যটা অনেক অনেক ভালো লেগেছে মন থেকে
কুয়াকাটা সমুদ্র বন্দর বাংলাদেশের একটা অন্যতম নামকরা জায়গা। এখানে খুব বড় একটা টুরিস্ট প্লেস গড়ে উঠেছে। এটা মূলত একটা বহুৎ বড় সমুদ্র সৈকত হিসেবে বেশি পরিচিত। আমরা কম বেশী সকল জায়গায় ঘুরে থাকবো। এটা ঘোরার জন্য খুব আকর্ষণীয় এবং এখানে বহু মানুষ আসে দূর-দূরান্ত থেকে সুন্দর জায়গাটি পর্যবেক্ষণ করতে এবং প্রকৃতির অপরূপ সৌন্দর্য দেখতে খুবই আকর্ষণীয় এবং আমাদের সকলের জন্য মনমুগ্ধকর ঘটে তাই আমাদের দৈনন্দিন জীবনের সকল সৌন্দর্য জায়গা করার কোনো বিকল্প নেই এসব সুন্দর জায়গা গুলো দেখার মাধ্যমে আমরা প্রকৃতিটা সুন্দরভাবে সুষ্ঠুভাবে রাখতে পারি তাছাড়া অপরূপ সৌন্দর্যের মধ্যে আমাদের দৈনন্দিন জীবনের কর্মবিরতির ফাঁকে ঘুরে আসতে পারে তাই এ সকল সৌন্দর্য জায়গা ঘুরতে যেতে পারি আমাদের মন এবং শরীর দুটোই ভালো হবে।সমুদ্রের মধ্যে এমন অসাধারণ দৃশ্য দেখে আমরা ঘুরতে যেতে পারি এবং এটা আপনার আমার সকলের মনকে উৎফুল্ল করবে এবং আমরা সকলে ভালো সুষ্ঠুভাবে সকল জায়গাগুলো ঘুরে যেতে পারে আশাকরি ছবিটি দেখে বোঝা যাচ্ছে এটা প্রকৃতির অপরূপ সুন্দর একটা নৌকা চলছে আমাদের চোখে একটা অসাধারণ মনমুগ্ধকর দৃশ্য ফুটে উঠেছে।
আজকের সন্ধ্যায় বন্ধুরা মিলে একটু চটপটি খেতে গিয়েছিলাম ফুচকা খেতে গিয়েছিলাম তার একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের বাজারে সব থেকে জনপ্রিয় ফুচকার দোকানে বসে বসে আমরা রাতের বেলায় ৫ জন মিলে ফুচকা খাচ্ছি তারই একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরতে পেরে অনেক অনেক খুশি এবং আনন্দে নিশ্চয়ই আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের এই অসাধারণ দৃশ্য দেখে আমাদের অনেক অনেক বড় একটা বাজারের ভিতরে মাত্র একটা ফুচকার দোকান কারণ এখানে সবথেকে জনপ্রিয় ফুচকা তৈরি করা হয় সাতক্ষীরা শহর থেকে বিভিন্ন শহর থেকে মানুষেরা আমাদের এই বাজারে এই একমাত্র দোকানে ফুচকা খাওয়ার জন্য আসে আমরা সেখানে গিয়েছিলাম প্রতিদিন কয়েক হাজার পিস ফুচকা সেখানে বিক্রয় করা হয় জনপ্রিয় একটা ফুচকার দোকান আমরা সেখানে বসে বসে সন্ধ্যাবেলায় বন্ধুরা মিলে ফুচকা খাচ্ছি তার একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে এই অসাধারণ ফুচকা খাওয়ার চিত্রটা ফুচকার সঙ্গে বিভিন্ন ধরনের মসলা জনপ্রিয় কিছু টক জাতীয় খাবার সেখানে থাকে এবং ফুচকা সবথেকে বেশি মেয়ে এবং ছেলেদের পছন্দ কারণ এগুলা সবথেকে মেয়ে ছেলেরাই বেশি খায় যুবক মেয়ে ছেলেরা অত্যন্ত জনপ্রিয় এটা আমাদের বাজারে আসা করি আমাদের রাতের বেলায় বন্ধুরা মিলে ফুচকা খাওয়ার একটা অসাধারণ চিত্র আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম প্রতিপিস ফুচকার দাম মাত্র 30 টাকা করে নেওয়া হয় আমাদের বাংলাদেশ টাকা অনেক সৌরভ মূল্যে আমরা পেয়ে যায় আমাদের হাতের কাছেই জনপ্রিয় ফুচকা এজন্য খুবই খুশি আমরা মাঝে মাঝে বন্ধুরা মিলে গিয়ে ফুচকা খেয়ে আসি কারণ আমাদের ফুচকা খেতে অনেক অনেক ভালো লাগে আজকেও আমরা খেয়েছি তার একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম সবথেকে সুস্বাদু এবং জনপ্রিয় খাবার আমাদের বাজারের মানুষের কাছে সবথেকে এক নম্বর স্থানে জনপ্রিয় ফুচকা চিত্র ,ধুলিহর বাজার সাতক্ষীরা জেলা বাংলাদেশ
তিস্তা নদীর এক অসাধারণ দৃশ্য। এটি মূলত আমাদের বাংলাদেশ তিস্তা নদী, খুব জনপ্রিয় একটি নদী। এটা খুবই সুন্দর।  দেখতে পারবেন যে লম্বা করে নদী পেরিয়ে গিয়েছে আশেপাশে খুব সুন্দর বাক এবং প্রকৃতির অপরূপ সৌন্দর্যের মধ্যে অবস্থিত। প্রকৃতির অপরূপ সৌন্দর্যের মধ্যে নদীটি এখানে অবস্থান করছে। এটা দেখে মুগ্ধ করে প্রকৃতির সাথে তাল মিলিয়ে এই নদীর স্রোত বয়ে চলেছে। এবং এটি মূলত বাংলাদেশের দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলের থেকে এসেছে। এবং চলমান রয়েছে বাংলাদেশের মানুষের সম্পৃক্ততা। এই তিস্তা নদীর সাথে বহু মানুষের জীবিকা নির্বাহ করছে 
। তারা মাছ শিকার সহ অন্যান্য বিভিন্ন কর্মকান্ডের সাথে নিয়ে যেতে আমাদের সকলকে সুন্দরভাবে পরিচালনা করতে সহায়তা করে।প্রকৃতির অপরূপ সৌন্দর্যের মধ্যে আমাদের প্রত্যেকেরই টিকে থাকতে হবে। এবং প্রকৃতিকে ভালবাসিতাই প্রকৃতির অপরূপ সৌন্দর্যের মধ্যে সৌন্দর্যময় জায়গা ঘোরাঘুরি করার কোনো বিকল্প নেই। আশাকরি ছবিতে দেখে সেটা উপলব্ধি করতে পেরেছেন।এই নদীটি আসলে অনেক দীর্ঘতম এবং এটা 13 হাজার কিলোমিটারের বেশি দৈর্ঘ্য এবং এটা আসলে খুব সুন্দর। ঘুরে দেখতে পারেন এটা খুবই সুন্দর নদী তিস্তা নদী। বাংলাদেশের অন্যতম অর্থনীতিতে নামকরা নদী।
যশোর জেলার একটি রোড এই রোডটা কে বলা হয় প্যারিস রোড তাই রাতের বেলা এই প্যারিস রোড এ দৃশ্যটা একটি অসাধারণ দৃশ্যমান ছবি হয়ে ওঠে কারণ প্যারিস রোড এ রাত্রে আলোকসজ্জায় সজ্জিত
বিভিন্ন ডিজাইনের বাতি দিয়ে তৈরি করা আলোগুলো কতইনা অসাধারণ দৃশ্যমান আলোর সজ্জায় সজ্জিত এই প্যারিস রোড একটি অসাধারণ দৃশ্যমান রোড কারণ বাংলাদেশের দক্ষিণে যশোর জেলার মানুষেরা খুবই আনন্দময় মানুষ এখানকার মানুষেরা খুবই অসাধারণ তাই দেখতে পাচ্ছেন সন্ধ্যার পরে অনেক পথ যাত্রীরা রাস্তা দিয়ে হেঁটে চলেছেন তাদের নিজের গন্তব্য টাইপের এই দৃশ্যটা সবার চোখে পড়ার মতো একটি ছবি তাই বন্ধুরা রোডের সাইডে পাঁচিল দিয়ে এবং গাছ-গাছালি দিয়ে ভরা প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের লীলাভূমি এই প্যারিস রোড যশোর জেলার বৃহত্তম প্যারিস রোড বাংলাদেশের একটি নান্দনিক রোড যশোর জেলার নান্দনিক এই শহরে একটি অসাধারণ অসাধারণ লেগেছে
অসাধারণ একটি বাড়ির ছবিটা খুবই অসাধারণ লাগছে কারন ফুলে ফুলে ভরা ফুল এই ঘ্রাণে ভরা এই বাড়ির দৃশ্যটা একটি অসাধারণ দৃশ্য দেখতে পাচ্ছেন টিনের ছাউনি একটি বাড়ি কতইনা অসাধারণ করে সাজানো হয়েছে ঝুলানো হয়েছে ফুল দিয়ে রাখা হয়েছে ফুল তাই সব মিলিয়ে অসাধারণ ফুলের সুবাসে ভরে গেছে এই সমস্ত বাড়ির দৃশ্য টা আর বাড়ির কালার খুবই অসাধারণ করে কালার করা হয়েছে দেখলেই মনে হয় পেইন্টিংয়ের শরিয়া কা কোন অসাধারণ একটি কালারফুল এই বাড়ির দৃশ্য তাই বন্ধুরা নিশ্চয়ই তোমাদের এই ছবিটা ভাল লাগার মত একটি ছবি তাই ভালোতো লাগবে কারণ এই প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আর মনোরম পরিবেশ এই বাড়ির সামনের আঙিনার দৃশ্যগুলো আরো কত মাটি দিয়ে তৈরি করা ছোট ছোট গাছের মত দৃশ্য এবং ভাস্কর্যের মতো তৈরি সামনের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য সব মিলিয়ে দৃশ্যমান তাই এই ছবিটা তোলা হয়েছে বাংলাদেশের পূর্ব থেকে পশ্চিম অঞ্চলের একটি জেলা জেলা জেলা ছোট্ট একটি গ্রাম গ্রামটা বাগেরহাট জেলার একটি গ্রামের এই ছোট্ট ছবিটা অসাধারণ এই ছোট্ট গ্রামের আমাদের কাছে খুবই প্রিয় একটি বাড়ির ছবি এলাকার মানুষেরা টিনের ছাউনি ঘর করতে খুবই ভালবাসে তাই টিনের ছাউনি ঘর করে ঘরের সামনে  ফুল দিয়ে সাজানো হয়েছে এই বাড়ির দৃশ্যটা সব মিলিয়ে ছবিটা অসাধারণ নিশ্চয়ই তোমার এই ছবিটা ভালো লাগবে ভাল লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করুন
মনের ভিতর যখন হরিণের ঝাঁক একসাথে বেড়াতে থাকে তখন কতই না ভাল লাগে তাই তেমনই কয়েকটা ছবি তোমাদের সামনে আমি তুলে ধরবো বাংলাদেশের ঐতিহ্যবাহী জেলা সাতক্ষীরা জেলা সাতক্ষীরা জেলা বাংলাদেশের শেষ প্রান্তের জেলা এর সাইটে এক বঙ্গোপসাগর আর অপরদিকে আছে বাংলাদেশের সবচেয়ে বৃহত্তম বন সুন্দরবন তাই এই সুন্দরবন আমাদের কাছে খুবই প্রিয় এবং খুবই অসাধারণ তাই সুন্দরবনের হরিণ এরা যখন নদীর সাইটে এসে গাছের পাতাগুলো খেয়ে থাকে তখনই এই ফটোগ্রাফি টা করা হয়েছিল খুবই অসাধারণ তাই সুন্দরবনের হরিণ আমাদের কাছে খুবই প্রিয় একটি হরিণ বাংলাদেশের ম্যানগ্রোভ বন সুন্দরবন আমরা খুবই করে থাকে তাই বন্ধুরা এই ছবিটা তারই একটি প্রতিচ্ছবি কারণ বৃহত্তম ম্যানগ্রোভ সুন্দরবন বঙ্গোপসাগরের কোল ঘেঁষে বয়ে চলা বাংলাদেশের দক্ষিণের সর্বশেষ জেলা সাতক্ষীরা জেলার পাশেই এই সুন্দরবন আমাদের কাছে প্রিয় তাই এটা একটি দর্শনার্থীদের জন্য অসাধারণ এক ছবিতে দেখতে পাচ্ছেন পর্যটকরা বেড়াতে এসেছেন আর বেড়াতে এসে হরিণদের খাবার দিচ্ছেন হাতে করে এই হরিণদের খাওয়ার দেওয়া হাতে করে এই দৃশ্যটা কতইনা অসাধারণ দৃশ্যমান এবং খুবই অসাধারণ তাই বাংলাদেশের এই ম্যানগ্রোভ  সুন্দরবন খুবই প্রিয় এবং খুবই দর্শনীয় স্থান এখানে প্রতিবছর অনেক দর্শনার্থীরা ঘুরতে আসেন বেড়াতে আসেন তাই সব মিলিয়ে ছবিটা অসাধারণ নিশ্চয়ই তোমাদের ছবিটা খুবই ভালো লাগবে তাই আপনাদের যদি ম্যানগ্রোভ সুন্দরবনের ছবিটা ভালো লেগে থাকে অবশ্যই অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করবেন এই হলো আমাদের কাছে খুবই প্রিয় একটি অসাধারণ
কলাগাছিয়া সুন্দরবন,এটা খুব সুন্দর একটি জায়গা এখান দিয়ে ছোট্ট একটি নদী ও চলে গিয়েছে। দেখতে পারবেন সুন্দরবন অত্যন্ত নামকরা একটি জায়গা। এবং এটা ম্যানগ্রোভ ফরেস্ট হিসেবে পরিচিত। অসাধারণ সৌন্দর্যের মধ্যে জায়গাটি খুবই জনপ্রিয়। প্রকৃতিতে সুনাম স্বনামধন্য সকল জায়গায় রয়েছে তার মধ্যে এটির কোনো বিকল্প নেই। বিশেষ করে অপরূপ সৌন্দর্যময় জায়গা আমরা গর্ব প্রকৃতিটা সুন্দরভাবে ভাল থাকব। এবং প্রকৃতিতে নিজেদেরকে মানিয়ে গুছিয়ে ছবিটি দেখে সেটা বোঝা যাচ্ছে তাই আমাদের প্রত্যেকেরই জায়গায় ঘোরার অভিজ্ঞতা নেই তাছাড়া নদীর দৃশ্য যা দেখে সকল জায়গায় ঘোরার মাধ্যমে বিশেষ করে আমরা নতুন নতুন জ্ঞান আহরণ করতে পারব কতদিন হয়েছে এটা দেখতে আরো সুন্দর লাগছে এবং প্রকৃতির মধ্যে এমন সুন্দর দৃশ্য দেখার কোনো বিকল্প নেই সেটা উপলব্ধি করতে পেরেছেনসুন্দরবনের এমন অসাধারণ দৃশ্য আসলে চোখে দেখার মত এবং এটা প্রকৃতির অপরূপ সৌন্দর্যের মধ্যে উপরে ঘটে এমন সৌন্দর্যময় জায়গা গুলো বেশি বেশি করে ঘুরবো এবং প্রকৃতির সাথে নিজেদের মানানসই করে নিয়ে চলবো তাহলে আমাদের সকলের জন্য মঙ্গল জনক এবং ভালোবাসা করে ছবিটি দেখলেই সেটা বোঝা যাচ্ছে।
সূর্য অস্ত যাওয়ার সময় এর দৃশ্যটি আমাদের দেখতে অনেক ভালো লাগে আর এই ধরনের দৃশ্য আমরা দেখতে পাই প্রত্যেকদিন বিকেল বেলা শেষের দিকে এখানে ছবিতে আমরা দেখতে পাচ্ছি সূর্য অস্ত যাচ্ছে সেই দৃশ্য আর এই দৃশ্যটি একটি নদী এলাকা থেকে ছবিটি তোলা হয়েছে আর এই স্থানটির নাম হচ্ছে সাতক্ষীরা জেলার কালাবাগি নদীর পাড় থেকে এই ছবিটি তোলা এখানে আমরা দেখতে পাচ্ছি সূর্য অস্ত যাওয়ার আগমুহূর্তে খুব সুন্দর একটি দৃশ্য সূর্য অস্ত যাচ্ছে আর আমি এই সময় এই ছবিটি তুলেছি এখানে খুব সুন্দর সূর্যকে দেখা যাচ্ছে পানির নিচে সূর্য উঠেছে আর এই দৃশ্যটি শেষ বিকেলের দিকে তলা হয়েছে শেষ বিকেলে কালাবাগি নদী এলাকায় আমি ঘুরতে যে ছবিটি তুলেছিলাম আর এখানে খুব সুন্দর মনোরম পরিবেশ গ্রাস করছে জানো না যেদিকে দুচোখ যায় সেদিকে শুধু পানি আর পানি আর এই পানিতে সূর্যটা জ্বলে জ্বলে উঠছে এবং সূর্যের প্রতিচ্ছবি দেখা যাচ্ছে খুব সুন্দর একটি দৃশ্য এটি শেষ বিকেলে বেড়াতে যাওয়ার সময় রাস্তার ধার থেকে কালাবাগি নদীর পাড় থেকে এই ছবিটি তোলা হয়েছে আর এখানে আমরা খুব সুন্দর সেই দৃশ্যটি দেখতে পাচ্ছি আর এই ধরনের দৃশ্য প্রত্যেকদিন শেষ বিকেলের দিকে আমরা দেখ তে পাই আর এই দৃশ্য দেখলে আমাদের মনটা আনন্দে ভরে ওঠে এখানে খুব সুন্দর মনোরম পরিবেশ বিরাজ করছে আর এই ধরণের পরিবেশের সকল মানুষের ঘুরে বেরাতে অনেক মজা লাগে আনন্দ লাগে আমরা এই ধরনের পরিবেশে ঘুরতে অনেক বেশি ভালোবাসি এবং এই গ্রীষ্মে আমরা সেটি খুব সুন্দর দেখতে পাচ্ছি সূর্য অস্ত যাওয়ার আগমুহূর্তে এই ছবিটি এখানে ফ্রেমবন্দি করা হয়েছে
নদীতে মাছ ধরার কিছু অসাধারণ রোমান্টিক মুহূর্ত আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন গ্রামের সব বয়সী মানুষ সেরা ছেলেমেয়েরা নারী-পুরুষেরা সবাই একত্রিত হয়ে নদীতে মাছ ধরেছে তার একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম আশা করি এই অসাধারণ দৃশ্য আপনাদের কাছে অনেক অনেক ভালো লাগবে আজকে হঠাৎ করে আমাদের নদীতে প্রচুর পরিমাণ এসেছে এজন্য এই মাছগুলো ধরার জন্য গ্রামের মানুষেরা নদীতে গিয়েছে মাছ ধরতে তারই কিছু চিত্র আপনারা দেখতে পাচ্ছেন আমিও গিয়েছিলাম নদীতে মাছ ধরার জন্য মাছ ধরতে অনেক অনেক ভালো লাগে গ্রামের মানুষের আমারও খুব ভালো লাগে এজন্য আমিও তাদের সঙ্গে মাছ ধরতে গিয়ে ছিলাম এবং তারই একটা অসাধারণ দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম আশা করি এগুলা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে নদীর দুধার দিয়ে প্রচুর পরিমাণ গাছগাছালি হাজারো মানুষের নদীতে মাছ ধরার জন্য তার দৃশ্য দেখতে পাচ্ছেন সব মিলিয়ে অসাধারণ কিছু মুহূর্ত আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম এবং আমি পেয়েছি নদী থেকে মাছ ধরে খুব সুন্দর একটা মুহূর্ত উপভোগ করছে আমরা গ্রামের মানুষেরা সবাই গিয়েছিলাম ছোট বড় বড় ভাই ছোট ভাই চাচা চাচি গিয়েছিলাম মাছ ধরতে তার একটা চিত্র আপনারা দেখতে পাচ্ছেন প্রতিটা মানুষ অনেক করে মাছ পেয়েছে এবং রুই মাছ কাতলা মাছ গ্লাস কাপ মাছ কৈ মাছ তেলাপিয়া মাছ আর বিভিন্ন ধরনের মাছ আজকে আমরা পেয়েছি এবং অনেক অনেক আনন্দ বিনোদনের মধ্যে আমরা মাছ ধরতে সক্ষম হয়েছে এবং খুবই ভালো লেগেছে আমাদের আমাদের গ্রামের পাশ দিয়ে বয়ে যাবে নদীতে মাছ ধরার দৃশ্যসুন্দর একটা মুহূর্ত আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরতে পেরে নিজেকে অনেক অনেক ভালো লাগছে এবং খুবই আনন্দ উপভোগ করছিল মাছ ধরার কাজে ব্যস্ত রয়েছ
সুন্দর এই মন্দিরটি বান্দরবান জেলায় অবস্থিত। এটা মূলত একটি বৌদ্ধ মন্দির। বান্দরবান জেলায় উক্ত এলাকায় সৌন্দর্যময় বহু আগে তৈরি এই মন্দিরটি রয়েছে। এলাকায় সকল বৌদ্ধ ধর্মাবলি এই মন্দিরে প্রার্থনা করে থাকে। এবং এই মন্দিরে  প্রধানত বিয়ের ব্যাপারে বিভিন্ন কাজ করা হয়ে থাকে। এবং বিয়ে সম্পন্ন করা হয়ে থাকে। বান্দরবান জেলায় সম্প্রদায়ের মন্দিরে বেশি চলে আসে। এবং তারা বিভিন্নভাবে এখানে তাদের জীবনের বিভিন্ন কর্মকান্ড নিয়ে বিভিন্ন প্রার্থনা করে থাকে। বিশেষ করে খাসি সম্প্রদায়ের বিভিন্ন রীতিনীতি রয়েছে। যারা মেনে চলে এবং প্রকৃতির সাথে অসাধারণ হয়েছে মায়ের সাথে চলে তাই আমাদের প্রত্যেকের এমন সৌন্দর্যের মধ্যে দিয়ে চলছে। প্রকৃতিকে ভালবাসতে হবে এবং প্রকৃতির অসাধারণ দৃশ্য মধ্যে নিজেদের টিকিয়ে রাখতে হবে। বুঝতে পেরেছেন এবং প্রকৃতির অপরূপ সৌন্দর্যময় জায়গা গুলোর মধ্যে আমরা  থাকবো। প্রকৃতিকে ভালবাসবে বহু এমন সময় পর্যটন কেন্দ্রগুলো ঘুরিয়ে ঘুরিয়ে দেখব। প্রকৃতির অপরূপ সৌন্দর্যের মধ্যে গড়ে উঠেছে এমন সুন্দর মন্দিরএমন সৌন্দর্যে ঘেরা মন্দিরটির দেখতে আসলেই চোখজুড়ানো এবং এখানে বহু পর্যটক আসে দূর-দূরান্ত থেকে যায় আসলে খুবই সুন্দর একটা এমন সৌন্দর্যবর্ধনে টিকে থাকবে ভালো সুস্থ-সুন্দর ভাবে এবং সকলের সব জায়গা ঘুরে বেড়াবো আশাকরি পর থেকে আমার কথা বুঝতে পেরেছেন এবং আমরা প্রত্যেকেই প্রত্যেক ধর্মকে সম্মান করব এবং প্রত্যেকেরই নির্দিষ্ট ধর্মের পেতে অবশ্যই বিশ্বাস রাখব।
এটি একটি মন্দির।   দেখতে অনেক সুন্দর। অসাধারণ দৃশ্য  নাম শিব মন্দির।  মন্দির অনেক বহুতলবিশিষ্ট  মনটা অনেক ভালো। এটি কলকাতা শহরে অবস্থান করে। এখানে অনেক লোক দূর-দূরান্ত থেকে ভ্রমণ করতে আসেন। কারণ এই মন্দিরটি এখন একটি পর্যটন নগরী। নগরী টা অনেক ভালো এবং এখানে অনেক সময় কাটাতে অনেকে বেড়াতে আসে। সব মিলিয়ে এ জায়গাটা অপূর্ব একটি জায়গায়। জায়গাটা দেখে আমি মুগ্ধ হচ্ছি। আশেপাশে সুন্দর প্রকৃতি রয়েছে। এ জায়গার পাশে একটি নদী রয়েছে। নদীতে অনেক সুন্দর নাম তার সুরমা নদী। সম্বন্ধীয় অসাধারণ এই মন্দিরটা গড়ে উঠেছে মন্দির। মন্দির এখানে অনেক পণ্ডিত প্রার্থনা করছেন। এবং তারা এখানে অনেক গবেষণার কাজ করেছিল। চারিপাশে সুন্দর গাছ গাছালি দেখতে পাচ্ছি গাছগাছালি গুলো অনেক অসাধারণ। দেখতে পাচ্ছি আকাশটাও চকচক করছে। আকাশে কোন মেঘ নেই আকাশটা অনেক সুন্দর এবং এখানে সুন্দর বাজি ধরা প্রবাহিত হচ্ছে সব মিলে আমার কাছে ছবিটি অনেক ভালো লেগেছে। আশা করি আপনার কাছে এ ছবিটি অনেক ভালো লাগবে। এই জায়গা থেকে বেশি দূরে নয় এ জায়গাটি আমার কাছে মাঝে মাঝে অনেক রোমাঞ্চকর লাগে।
বগুড়া জেলার ঐতিহ্যবাহী একটা মেলার চিত্র আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম প্রতি বছর একই স্থানে বগুড়া জেলার অন্তর্গত শহরে অবস্থিত এক মেলা অনুষ্ঠিত হয় সেখানে হাজার হাজার মানুষের সমাগম হয় অনুষ্ঠিত হয় মেলার বিভিন্ন ধরনের আয়োজন করা হয়ে থাকে প্রতিটা মেলায় যেমন আয়োজন থাকে বগুড়া জেলায় এই মেলার আয়োজন করা হয়ে থাকে 64 জেলা থেকে মানুষেরা এই মেলায় অংশগ্রহণ করে বিভিন্ন ধরনের দোকানপাট অংশগ্রহণ করে বিভিন্ন ধরনের খেলাধুলা বিভিন্ন ধরনের সংস্কৃতিক অনুষ্ঠান সার্কেল খেলাম আর বিভিন্ন ধরনের ম্যাজিক খেলা এখানে দেখানো হয় মেলায় অংশগ্রহণ করে সবাই আনন্দ বিনোদনের জন্য সকল প্রকারের জিনিসেই মেলায় দেখা যায় এবং বাঙালির ঐতিহ্যবাহী স্মৃতি কুটির শিল্প নকশি কাঁথা সব ধরনের জিনিস বিক্রয় করা হয় আশা করি এগুলো আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে বাচ্চা ছেলেমেয়েদের জন্য আনন্দ বিনোদন এর সকল প্রকারের জিনিস আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন প্রচুর পরিমাণ মানুষের ভিড় লেগে গিয়েছে এই মেলায় সবাই একত্রিত হয়ে চলাফেরা করছে আনন্দ-বিনোদন সব মিলিয়ে অসাধারণ কিছু চিত্র আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম এবং বাংলাদেশের ভিতরে বগুড়া জেলার দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম এবং এই মেলায় আমরা সরাসরি অংশগ্রহণ করেছি এবং আমি আমার জীবনে তিনবার এই মেলায় গিয়েছি এবং আমি নিজের চোখে দেখেছি এবং আনন্দ উপভোগ করেছে অনেক সুন্দর একটা মুহূর্ত উপভোগ করেছি আমার সারা জীবন এই মেলার কথা মনে থাকবে কারন আমি এই মেলায় অংশগ্রহণ করতে পেরে খুবই খুশি হয়েছিলাম আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম এবং কিছু অসাধারণ চিত্র আপনারা দেখতে পাচ্ছেন বিভিন্ন ধরনের দোকানপাট এবং এই মেলায় সবথেকে সুন্দর আকর্ষণ হলো পানির ভিতর লাইটিং করার দৃশ্য পানি গুলো অনেক সুন্দর দেখা যাচ্ছে এবং এই মেলা কারো রয়েছে ফুলের দোকান জন্য ধরনের বিক্রয় করা হচ্ছে সব মিলিয়ে অসাধারণ অসাধারণ কিছু মুহূর্তগুলো আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম যেগুলো আমার জীবনের স্মৃতি হয়ে থাকবে সারা জীবন আমি এগুলো কখনো ভুলতে পারবো না সেই সব দৃশ্যগুলো আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম বগুড়া জেলার অন্তর্গত শহরে অবস্থিত এই মালে সব মিলিয়ে অসাধারণ দৃশ্য আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন
সাতক্ষীরা জেলার ঐতিহ্যবাহী শহরের একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে সাতক্ষীরা জেলা শহরের দৃশ্য গুলো দেখে মানুষ চলাচল করছে যানবাহন চলাচল করছে সব মিলিয়ে অসাধারণ দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম রাস্তার দুই ধার দিয়ে প্রচুর পরিমাণ দোকানপাট মানুষের চলাচল প্রচুর পরিমাণ মানুষের ব্যবসা করে আমাদের এই শহরে এ শহরে অনেক সম্মানীয় একটা শহর বাংলাদেশের মানুষের কাছে অত্যন্ত পরিচিত একটা শহর সাতক্ষীরা শহর বাংলাদেশের 64 জেলার ভিতরে সাতক্ষীরাকে অন্যতম শহর বলা হয় এবং সবার কাছে পরিচিত একটা শহর আমি সাতক্ষীরা শহরের কিছু চিত্র আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম আশা করি এগুলো দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে এবং আমরা মাঝে মাঝে সাতক্ষীরা শহরে যায় আমাদের প্রয়োজন কাটা করার জন্য আমাদের হাতের কাছেই আমরা সব ধরনের জিনিস পেয়ে যায় সাতক্ষীরা শহরে সাতক্ষীরা শহরের সব ধরনের জিনিস পাওয়া যায় প্যান্ট শার্ট গেঞ্জি শাকসবজি প্রয়োজনীয় যত প্রকারের জিনিস রয়েছে আমাদের দৈনন্দিন জীবনে আমাদের ব্যবহার করতে হয় সব ধরনের জিনিসপত্র শহরে পাওয়া যায় এবং খুব দ্রুত আমরা যানবাহনে করে যেতে পারে রাস্তা গুলো অনেক সুন্দর নতুন করে তৈরি করে দেওয়া হয়েছে অনেক উন্নত করে দেওয়া হয়েছে আমাদের সাতক্ষীরা শহর টা আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে অসাধারণ দৃশ্য গুলো দেখে যানবাহন চলাচল করছে মানুষেরা চলাচল করছে খুব সুন্দর দৃশ্য আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম বর্তমান শহরকে উন্নত মডেল শহর বলা হয় এবং জেলা চেয়ারম্যান তিনি সাতক্ষীরা শহর উন্নত পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা করার জন্য কাজ করছে ক্লিন সাতক্ষীরা সাতক্ষীরা নতুন করে আফডেট চলে এসেছে এবং শহরকে নতুন করে তৈরি করার অনুমতি দেওয়া হয়েছে এবং খুব সুন্দর করে সাতটা নতুন করে তৈরি করা হবে এবং সাতক্ষীরা শহরের মানুষের চাপ প্রচুর পরিমাণ মানুষ বসবাস করে আমাদের সাতক্ষীরা জেলায় 25 লাখ মানুষের বসবাস রয়েছে অনেক বড় একটা শহর এবং জনসংখ্যা অনেক বেশী এজন্য সাতক্ষীরা শহর টা অনেক সুন্দর করে পরিষ্কার পরিছন্নতা করে রাখার চেষ্টা করছে এবং ছাত্র শহরের দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম মানুষের একত্রিত হয়ে চলাফেরা করছে মিলেমিশে বসবাস
আমি আপনাদের সামনে অনেক সুন্দর একটা প্রাকৃতিক সৌন্দর্যময় চিত্র তুলে ধরলাম এটা হল আমাদের গ্রাম আমাদের গ্রামের সৌন্দর্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করছি আপনারা নিশ্চয়ই দেখতে পাচ্ছেন এখানে আমাদের গ্রামের রাস্তা গ্রামের মাঠ সবুজ ধানক্ষেত ছোট ছোট ঘর বাড়ি যেখানে মানুষের বসবাস করে সব মিলিয়ে আমাদের গ্রামের প্রাকৃতিক সৌন্দর্যময় দৃশ্যগুলো আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম এটাই আমাদের গ্রাম আমরা এখানে বসবাস করি এটাই আমাদের সৌন্দর্য এটাই আমাদের জন্মস্থান আমরা সবাই আমাদের গ্রামে মিলেমিশে থাকার চেষ্টা করি এবং সবাই একসঙ্গে চলাফেরা করি সব মিলিয়ে আমাদের গ্রামটা অনেক প্রাকৃতিক সৌন্দর্যময় একটা গ্রাম আমাদের এই গ্রামে রয়েছে হাজার হাজার গাছ গাছালি পশুপাখি প্রাণী মানুষ সবাই একসঙ্গে আমরা বসবাস করি সর্বোচ্চ দিয়ে আমরা চেষ্টা করি আমাদের গ্রাম কে রক্ষা করার জন্য এবং আমাদের গ্রামের সোনার ধান সোনালী ফসল ফলায় আমরা মাঠে দেখতে পাচ্ছেন ধানে ভরা আমাদের এই মাঠ সবুজ শ্যামল শ্যামল আমাদের এই বাংলাদেশ প্রাকৃতিক সৌন্দর্যময় সব মিলিয়ে আমাদের গ্রামের অসাধারণ চিত্র আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম নিশ্চয়ই আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে এই অসাধারণ দৃশ্য দেখে আমরা সব সময় আমাদের গ্রামের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আপনাদের সামনে তুলে ধরতে চাই এবং আমাদের গ্রামেরই এই দৃশ্য আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন আমাদের গ্রাম আমরা সুন্দরভাবে পরিষ্কার পরিছন্নতা করে রাখব আমাদের দায়িত্ব আমাদের গ্রামের সব মিলিয়ে অসাধারণ কিছু দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম মানুষের ছোট ছোট কুড়ে ঘর বস করার জায়গা সব সুন্দর সুন্দর কিছু চমৎকার চিত্র আপনারা দেখতে পাচ্ছেন এখানে আমরা বসবাস করি এবং আমাদের গ্রামের সকল পর্যায়ের মানুষের আমরা মিলেমিশে বসবাস করি তারই কিছু বসতবাড়ি দৃশ্য দেখতে পাচ্ছেন এবং আমাদের চলাচলের রাস্তা গুলো দেখতে পাচ্ছেন সর্বশেষ যে কথাটা বলতে চাচ্ছি আমাদের গ্রামের প্রাকৃতিক 
একটাা গ্রাম যেখানে হাজারো মানুষের বসবাস তারে কিছু দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম বাংলাদেশের 64 টি জেলার ভিতরে সাতক্ষীরা জেলায় অন্তর্গত নয় নম্বর ইউনিয়ন জেয়ালা  গ্রাম এটা
কত সুন্দর শিল্পের কারুকাজ দেখলেই যেন প্রাণটা জুড়িয়ে যায় কারণ এই কারো কাজগুলো আমাদের সাতক্ষীরা জেলা শহর সুলতানপুর গ্রাম এর ভিতরের মানুষেরা বিশেষ করে বাড়ির মহিলারা বাড়ি বসে এই কাজগুলো করে থাকে কত সুন্দর এই কাজ দেখলে কতই না ভাল লাগে দেখতে পাচ্ছেন শক্ত কাগজ দিয়ে মিষ্টির ঠোঙ্গা তৈরি করতেছেন খুবই অসাধারণ ভাবে কত সুন্দর সাদা রঙের কাগজ দিয়ে মিষ্টির ঠোঙ্গা বানানো হচ্ছে এটা শিল্প-কারখানা দেখলে কতই না ভাল লাগে কারণ সাতক্ষীরা জেলা শহরের উপরে যতরা মিষ্টির দোকান আছে তাদের মিষ্টির ঠোঙ্গা এই সুলতান পুর গ্রামের ভিতরে তৈরি হয় তাই এই গুলো তৈরি করতে খুবই সময় লাগে দেখতে খুবই ভালো লাগে কারণ সংখ্যা তৈরি করার দৃশ্য অসাধারণ দৃশ্য মানুষকে সাতক্ষীরা শহরের সুলতানপুর গ্রামে একটি কাজে যাওয়ার জন্য বেড়াতে যাওয়ার সময় এই ছবিটা তোলা হয় এই যে কয়েকটা ছবি দেখতে পাচ্ছেন সাদা ঠোঙা তৈরি হচ্ছে এবং তার উপরে যে মিষ্টি ভান্ডার এর হোটেলের ঠোঙা তৈরি হচ্ছে সেই মিষ্টি ভান্ডার হোটেলের নাম দিয়ে আবার উপরের পাট দিয়ে তৈরি করে সুন্দর করে সাজিয়ে রেখেছেন ভাগ্যকুল মিষ্টি ভান্ডার এর ঠোঙা তৈরি হচ্ছে এটা কতইনা অসাধারণ এই সংখ্যা গুলো তাই এই মিষ্টির ঠোঙ্গা তৈরি করা দেখে আমার খুব ভাল লেগেছিল তাই এই ছবিগুলো তুলেছিলাম কতইনা অসাধারণ শিল্প তাই সব মিলিয়ে ছবিটি দৃশ্যমান এবং অসাধারণ তাই বন্ধুরা আপনাদের যদি ভালো লেগে থাকে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আমার চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করুন আপনার যদি ভালো লেগে থাকে অবশ্যই
এইযে পিকনিক স্পট টা ছবি তোমাদের সামনে আমি তুলে ধরেছি এটা বাংলাদেশের উত্তরবঙ্গের ঐতিহ্যবাহী একটি পিকনিক স্পট সেন্টমার্টিন দ্বীপ বলা হয় নাইকেল জিনজিরা এটা কক্সবাজার থেকে প্রায় 70 কিলোমিটার দূরে টেকনাফ শহর এই টেকনাফ শহর থেকে জাহাজে করে এই সেন্টমার্টিন দ্বীপে যেতে হয় খুবই অসাধারণ এই সেন্টমার্টিন দ্বীপ এটা আমরা বাংলায় বলে থাকি নাইকেল জিনজিরা কারণ এখানে প্রচুর পরিমাণ নারিকেল গাছ
এই যে ছবিটা আপনারা দেখতে পাচ্ছেন এটা একটি অসাধারন একটি জাহাজের ছবি এই জাহাজটি নারিকেল জিঞ্জিরা অথবা সেন্টমার্টিন দ্বীপ যে থেকে টেকনাফ শহর থেকে সকাল ছয়টায় ছেড়ে এই জাহাজটি
টেকনাফ নদীর উপর দিয়ে যখন জাহাজটি সেন্টমার্টিন দ্বীপের যাওয়ার জন্য প্রস্তুতি নয় তখন নদীর উপরে সাগরের উপরে যখন সাদা সাদা বকের ছানাগুলো উড়তে থাকে তখন কতই না ভাল লাগে কারন বগের ছানা খুবই সুন্দর দেখতে হয় তাই বন্ধুরা এই ছবিটি একটি অসাধারন এবং দৃশ্যমান এবং সেন্টমার্টিন দ্বীপে একটি পর্যটকদের জন্য দর্শনীয় স্থান এখানে প্রতিবছর প্রচুর পরিমাণ পর্যটকরা ঘুরতে যান দেখার মত একটি স্থাপনা সেনমাটিনদিপ সব মিলিয়ে একটি দৃশ্যমান ছবিটা অসাধারণ এবং এই সেন্টমার্টিন দ্বীপের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য এবং মনোরম পরিবেশ কতইনা দৃশ্যমান তাই এই যে দেখতে পাচ্ছেন ওঠার পরে নারকেল গাছ অসাধারণ দৃশ্য এবং প্রাকৃতিক সৌন্দর্য মনটাকে আবেগময় করে তোলে তাই আরো সুন্দর লাগবে এই টেকনাফসহ থেকে সাগরপথে এই সেন্টমার্টিন দ্বীপে অবশ্যই আপনারা বেড়াতে যাবেন সারি সারি নারিকেল গাছ হালকা হালকা রোদের তাপে সূর্যের আলো উঁকি দিয়ে যায় এই সেন্টমার্টিন দ্বীপের প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের উপর কত সুন্দর করে মাটির ঘর গুলো তৈরি করে রাখা আছে এই সেন্টমার্টিন দ্বীপের ঐতিহ্য ভরা একটি দৃশ্য বাংলাদেশের ঐতিহ্যবাহী জেলা এবং কক্সবাজারের মাঝখানে এই সেন্টমার্টিন দ্বীপের  প্রাকৃতিক সৌন্দর্য সাগরকন্যা মরুভূমির দৃশ্যমান অপরূপ বাংলাদেশ আমাদের কাছে প্রিয় একটি বাংলাদেশ
বাংলাদেশের দক্ষিণ অঞ্চলের যশোর জেলা যশোর জেলায় কালেকটারি স্কুলের সামনে নতুন একটি পার্ক করা হয়েছে খুবই অসাধারণ এই নান্দনিক পার্টি পার্কের ভেতরের দৃশ্য টা খুবই দৃশ্যমান তাই বন্ধুরা এই পার্কটি নতুন করে দর্শকদের জন্য খুলে দেওয়া হচ্ছে খুবই অসাধারণ এই পার্কের দৃশ্য তাই নান্দনিক পার্কের ভিতর রজনীগন্ধা ফুল গোলাপ ফুল ফুলে ফুলে ভরা ফুলের সৌরভ এর দৃশ্য নিশ্চয়ই ভালো লাগার মত তাই এই যশোর কালেক্টরেট পার্ক এর নাম দেয়া হয়েছে এই পার্কের ভেতরের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য চোখে পড়ার মতো এখানে মনোরম পরিবেশে ঘোরাঘুরি করার জন্য খুবই অসাধারণ একটি পরিবেশ রয়েছে যশোর জেলা কালেক্টর পার্ক এর ভিতরের দৃশ্য একটি অসাধারণ দৃশ্য খুবই ভালো লাগবে আর ভাল লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আমার চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করবেন
গ্রাম ছাড়া রাঙামাটির পথ আমার মন ভুলায় রে তেমনই একটি কোভিদ ভাষায় কবি লিখে গেছেন এই কবিতাটি তাই দেখতে পাচ্ছেন গ্রামের মেঠোপথ আমাদের কাছে কতই না প্রিয় একটি খাল পার হওয়ার জন্য বাঁশের সাঁকো তৈরি করে তার ওপর দিয়েই গ্রামগঞ্জের মানুষেরা কতইনা অসাধারণ এবং দৃশ্যমানভাবে চলাফেরা করে এক গ্রামের সাথে আরেক গ্রামের মেলবন্ধন এমনই বাঁশের সাঁকোর উপর দিয়েই হয়ে থাকে তাই কতই না সুন্দর এই বাঁশের সাঁকোর দৃশ্যটা তাই বন্ধুরা নাটোরের বনলতা সেন এর বাড়ির প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের লীলাভূমি এই গ্রামগঞ্জে এই প্রাকৃতিক সৌন্দর্য ছোট্ট একটি খাল আরেকটি অসাধারণ দৃশ্যমান হয়ে উঠেছে তাই সব মিলিয়ে ছবিটা আমার কাছে অসাধারণ তাই বন্ধুরা আপনাদের যদি ছবিটা ভালো লেগে থাকে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করবেন
ছুটিপুর এর রাস্তার প্রাকৃতিক সৌন্দর্য চোখে পড়ার মতো তাই এই যে ছবিটা তোমাদের মাঝে তুলে ধরেছি টেক রাস্তার ছবি বন্ধুরা রাস্তার গাছ গাছরা প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের লীলাভূমি ছুটিপুর এর গ্রাম তাই দেখতে পাচ্ছেন রাস্তার দুই সাইডে সোনালিকা সার্কাসের চাইতে লম্বা লম্বা কত অসাধারণ তাই এই গাছের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য হালকা রোদের সামনের দৃশ্য কতইনা দৃশ্যমান তাই সব মিলিয়ে ছবিটা আমার কাছে অসাধারণ ছুটিপুর গ্রামের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য অসাধারণ দৃশ্য মানুষ তাই সব মিলিয়ে রাস্তা এবং গাছ আর বাড়ীর আর আকাশের আকাশী রঙের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য সব মিলিয়ে অসাধারণ একটি দৃশ্য প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের ছবিটা এই ছবিটা আপনার যদি ভালো লেগে থাকে আপনি আপনার মোবাইলের স্ক্রিনে ওয়ালপেপার সেট করো খুবই অসাধারণ একটি ছবি
বাংলাদেশের উত্তরে বালিয়াকান্দি রাজবাড়ী জেলার বালিয়াকান্দি উপজেলার একটি অজ পাড়াগাঁয়ের কোল ঘেঁষে বয়ে চলা এই নদীটি খুবই অসাধারণ বন্ধুরা এই যে নদীটা দেখতে পাচ্ছেন বাংলাদেশের উত্তরের রাজবাড়ী জেলার বালিয়াকান্দি উপজেলার
সোনা কান্দি গ্রামের কোল ঘেঁষে বয়ে চলা এই নদী এবং প্রাকৃতিক সৌন্দর্য নদীর ঢেউ আর সাইটের দৃশ্য কতইনা অসাধারণ আকাশের রঙে রঙিন করার দৃশ্যটা নিশ্চয়ই তোমাদের ভালো লাগবে তাই রাজবাড়ী জেলা একটি দর্শনীয় স্থান দেখতে পাচ্ছেন এই সোনা কান্দি গ্রামের কোল ঘেঁষে বয়ে চলা নদী টি নদীর উপর একটি নৌকা আরে প্রাকৃতিক সৌন্দর্য চোখে পড়ার মতো সব মিলিয়ে ছবিটি আমার কাছে অসাধারণ দৃশ্যমান আরে নিশ্চয়ই তোমাদের এই ছবিটা পছন্দ হয় তোমার যদি পছন্দ হয়ে থাকে আপনি আপনার মোবাইলের স্ক্রিন ওয়ালপেপার সেট করে নিতে পারেন খুবই অসাধারণ এই সোনা কান্দি গ্রামের নদীর এই দৃশ্যটা
বাংলাদেশের উত্তরে রাজবাড়ী জেলার কুমারখালী উপজেলার বাংলাদেশ আট গ্রামের এই কোল ঘেঁষে বয়ে চলা একটি ছোট্ট নদী এই নদীর সাইডে দুইটা টিনের ছাউনি ঘর দেখতে পাচ্ছেন খুবই অসাধারণ এই ঘর দুইটা দুইটা একটি মাদ্রাসা খুবই দৃশ্যমান তাই এই বাংলাদেশ আট অজোপাড়া গায়ের গ্রামের কল গেছে বয়ে চলা এই মাদ্রাসাটি খুবই দৃশ্যমান এবং রাজবাড়ী জেলার কুমারখালী উপজেলার মাদ্রাসা এবং মসজিদ খুবই অসাধারণ প্রাকৃতিক সৌন্দর্য চোখে পড়ার মতো তাই বন্ধুরা এই মাদ্রাসার টিনের ছাউনি আর প্রাকৃতিক সৌন্দর্য কতইনা অসাধারণ দৃশ্যমান তাই রাজবাড়ী উপজেলা জেলার কুমারখালী উপজেলার এই দৃশ্যটা খুবই দৃশ্যমান তাই নিশ্চয়ই তোমাদের এই ছবিটা ভালো লাগবে আমার দেখাচ্ছ কি অসাধারণ একটি দৃশ্যমান এই ছবিটি
নান্দনিক সৌন্দর্যের লীলাভূমি প্রাচীন জেলা কুমিল্লার বিভিন্ন ঐতিহাসিক স্থান বিনোদন ও জ্ঞানপিপাসু পর্যটকদের আনাগোনায় বছরের প্রায় সবসময় মুখর থাকে। অসংখ্য প্রাকৃতিক ও প্রত্নসম্পদ নিদর্শনসমৃদ্ধ নয়নাভিরাম অপরূপ দৃশ্যের সমাহারে বিস্তৃত কুমিল্লায় এ বছর ঈদের লম্বা ছুটিতে ঘুরে বেড়ানোর উপযুক্ত সময়।ব্লু-ওয়াটার পার্ক’। এখানে রয়েছে পানির ফোয়ারা, শিশুদের জন্য বিভিন্ন রাইড্স, পাহাড় থেকে কৃত্রিম উপায়ে পানির ঝর্ণাধারা, হাতি, অজগর, কুমিরসহ বিভিন্ন পশুপাখির দৃষ্টিনন্দন প্রতিকৃতিআশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে খুলনা বিভাগের ভিতর ব্লু ওয়াটার পার্ক এর একটা অসাধারণ দৃশ্য আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম হাজার হাজার মানুষ প্রতিদিন এখানে গোসল করার জন্য আসে এখানে অনেক সুন্দর বাচ্চাদের জন্য আনন্দ বিনোদনের সব ধরনের আনন্দ বিনোদনের জিনিস তৈরি করা হয়েছে আশা করি আপনারা দেখতে পাচ্ছেন কুমিল্লা বিভাগের ভিতরে সবথেকে সুন্দর একটা অসাধারণ চিত্র আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করেন বর্তমান সময়ের জনপ্রিয় এবং জনপ্রিয় স্থান বাংলাদেশের ভিতরেবিভিন্ন ধরনের সুইমিংপুল ঝরনা সেখানে তৈরি করা হয়েছে মানুষের আনন্দ বিনোদন দেওয়ার জন্য এখানে প্রতিটা মুহূর্ত আনন্দ বিনোদনের সময় মানুষের বিভিন্ন জেলা থেকে বিভিন্ন দেশ থেকে মানুষের এখানে আনন্দ ভ্রমনের জন্য যায় কুমিল্লা বিভাগের একটা জনপ্রিয় স্থান এই পার্কের  নাম দেওয়া হয়েছে ব্লু ওয়াটার পার্ক বাংলাদেশেরমানুষের কাছে অত্যন্ত জনপ্রিয় একটা পার্ক আমরা এখানে পিকনিক করার জন্য গিয়েছিলাম অনেক অনেক মজা করেছি আমরা আমাদের গ্রাম থেকে ছেলেমেয়েদেরকে সঙ্গে করে নিয়ে সেখানে গিয়েছি অনেক অনেক ভালো লেগেছে গোসল করেছি অনেক আনন্দ বিনোদন করেছে বিভিন্ন স্থান থেকে মানুষ এসেছিল তারা সবাই মিলে আন্দোলন করেছে কুমিল্লা অসাধারণএকটা পার্ক এর চিত্র আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম আমি দুইবার গিয়েছিলাম এই পার্কে এবং অনেক গোসল  করেছি আমার জীবনে আমি কখনো ভুলব না এই পার্কের কথা আমারজীবনের সঙ্গে জড়িয়ে রয়েছে এই পার্কের স্মৃতি কারণ আমি এখানে গিয়ে অনেক স্মৃতি অর্জন করেছে সেটা আমাদের জীবনের সঙ্গে জড়িয়ে রয়েছে আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে
আমি অনেকদিন পরে আপনাদের সামনে একটা জনপ্রিয় দৃশ্য নিয়ে হাজির হলাম এটা থ্রিডি আর্ট মিউজিয়াম এর ভেতরের একটা অসাধারণ দৃশ্য বর্তমান সময়ে 3d আর্ট মিউজিয়াম এর ভিতরে অনেক জনপ্রিয় দৃশ্যের ভিতর একটা উল্লেখযোগ্য দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম অক্টোপাস মাছের একটা অসাধারণ চিত্র পৃথিবীর ভিতরে কয়েক হাজার প্রকারের প্রজাতি রয়েছে তার ভিতরে কয়েকটা উল্লেখযোগ্য অক্টোপাস মাছ তিমি মাছ হাঙ্গর মাছ এগুলা মানুষের কাছে অনেক জনপ্রিয় লাভ করেছেন এগুলো খুব সুন্দর করে মানুষের কাছে পরিচিত করার জন্য থ্রিডি আর্ট মিউজিয়াম এর ভিতরে মাছের দৃশ্য গুলো খুব সুন্দর করে সংরক্ষন করে রেখে দেওয়া হয় বর্তমানে এগুলা মানুষের কাছে অনেক জনপ্রিয় বিশ্বের এক নম্বর স্থানে রয়েছে থ্রিডি আর্ট মিউজিয়াম হাজার হাজার মানুষ প্রতিদিন এই মিউজিয়াম এর ভিতরে আনন্দ-বিনোদন করার জন্য যায় কারণ এই মিউজিয়াম এর ভিতরে পৃথিবীর সর্বশ্রেষ্ঠ জিনিসগুলো সংরক্ষণ করে রাখা হয়েছে এগুলো মানুষের দেখার জন্য যায় আনন্দ-বিনোদন করার জন্যে যায় এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে বর্তমান সময়ের কিছু জনপ্রিয় দৃশ্য একটা মেয়ে মাছের সঙ্গে খেলা করছে আনন্দ-বিনোদন করছে তারই একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম প্রতিটা মানুষ আনন্দ-বিনোদন করতে ভালোবাসে প্রতিটা মানুষের মনের ভিতরে রয়েছে আনন্দ-বিনোদন একটা অংশ তার আনন্দ বিনোদন করতে পৃথিবীর দূরদূরান্ত থেকে ছুটে আসে থ্রিডি আর্ট মিউজিয়াম এর ভিতরে অবস্থিত আমিও কয়েকবার গিয়েছি এই মিউজিয়াম এর ভিতরে আনন্দ-বিনোদন করার জন্য কারণ আমার আনন্দ-বিনোদন করতে ভালো লাগে আশা করি আপনারা এখানে নিশ্চয়ই দেখতে পাচ্ছেন অক্টোপাস মাছের সঙ্গে এই মেয়েটা অনেক সুন্দর ভাবে আনন্দ বিনোদনের মধ্যে রয়েছে তার একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরেন এটা খুব সুন্দর করে সংরক্ষন করে রেখে দেওয়া হয়েছে থ্রিডি আর্ট মিউজিয়াম এর ভিতরে পৃথিবীর ইতিহাসে বলে এবং ইতিহাসের পাতায় সুন্দর করে লেখা আছে থ্রিডি আর্ট মিউজিয়াম আনন্দ বিনোদন দেওয়ার একটা ঘর জাদুঘর বলে মানুষের কাছে জনপ্রিয়তা লাভ করেছেন অক্টোপাস মাছের অসাধারণ চিত্র আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন অক্টোপাস একটা সামুদ্রিক মাছ সমুদ্রের নিচে তোদের একটা রাজ্য রয়েছে তারা সেখানে বসবাস করে মানুষের কাছে পরিচিত হওয়ার জন্য এবং এটা খুব সুন্দর করে হাজার হাজার বছর ধরে সংরক্ষন করে রেখে দেওয়া হয়েছে তার একটা দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম বর্তমান সময়ে একটা জনপ্রিয় দৃশ্য থ্রিডি আর্ট মিউজিয়াম এর ভিতরে সবথেকে জনপ্রিয় চিত্র অক্টোপাস আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করছে
এখানে যে দৃশ্যটা আপনারা দেখতে পাচ্ছেন আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আজ বিকালে আমাদের গ্রামের ছেলেদের কে একত্রিত করে একটা ব্যাডমিন্টন খেলার আয়োজন করেছিলাম বিকালে বাচ্চা ছেলে মেয়েদের কে নিয়ে আমি ব্যাডমিন্টন খেলা কোরছি তার একটা দৃশ্য আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমি সহ আমাদের গ্রামের অনেক বাচ্চারা সেখানে উপস্থিত রয়েছেন কারণ খেলাধুলা করতে সবাই পছন্দ করে ছোট বড় সবাইকে খেলাধুলা করতে অনেক অনেক ভালো লাগে এই জন্য আমি মাঝেমাঝে গ্রামের ছেলেদের কে ছোট ছোট বাচ্চা ছাড়া রয়েছে লেখাপড়া কর তাদেরকে একটু আনন্দ বিনোদন দেওয়ার জন্য আমি ছোটখাটো খেলার আয়োজন করে থাকে আজ বিকালে এই আয়োজন করেছিলাম আমি প্রথম পুরস্কার দিয়েছি পাঁচশো টাকা দ্বিতীয় পুরস্কার 300 টাকা দামের নিজের ব্যক্তিগত ভাবে দিয়েছে আনন্দ-বিনোদন করার জন্য সবাইকে খুশি রাখার জন্য আমি চাই আমাদের গ্রামের সকল যুবক ছেলেরা খেলাধুলার প্রতি চাহিদা চলে আসুক লেখাপড়ার প্রতি তাদের খুবই আগ্রহী এজন্য তাদেরকে খেলাধুলার প্রতি আগ্রহী দেখানোর জন্য তাদেরকে যতটুক সাহায্য-সহযোগিতা করার প্রয়োজন আমি তাদেরকে সাহায্য করে থাকে তারা খুবই ভালো ছেলে খেলাধুলার প্রতি আগ্রহ তৈরি করছি ভবিষ্যতে তাদেরকে বড় বড় খেলার হিসাবে গড়ে তুলবো আমি এজন্য ছোটবেলা থেকে যাদের প্রাক্টিস খুবই প্রয়োজন তাদের খেলাধুলার প্রতি মনোযোগ দেওয়ার জন্য সকল প্রকারের প্রশিক্ষণ আমি তাদেরকে দিচ্ছে তাদেরকে লেখাপড়ার খরচ আমি নিজে বহন করি কারণ তারা গরীব অসহায় পরিবারের ছেলেমেয়েরা এজন্য তাদেরকে সকল সাহায্য-সহযোগিতা কতটুকু আমার পক্ষে সম্ভব হতো তখন তাদেরকে সাহায্য সহযোগিতা করে থাকে গ্রামের সকল মানুষ আমাকে অনেক অনেক ভালোবাসা আশা করি এই অসাধারণ দৃশ্য দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে গ্রামের ছোট ছোট ছেলে মেয়েদের কে নিয়ে বিকাল বেলা একটু ব্যাডমিন্টন খেলার আনন্দ বিনোদনের অসাধারণ দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম
একটি সমুদ্র সৈকতের ছবি খুবই অসাধারণ এই সমুদ্র সৈকত একটি পর্যটক কেন্দ্র এটা বাংলাদেশের পূর্বের চাঁদপুর জেলার মতলব সমুদ্র সৈকত খুবই অসাধারণ চাঁদপুর জেলার মতলব এটা দেখলে মনে হয় কক্সবাজার কিন্তু নয় এটা বাংলাদেশের কক্সবাজার সমুদ্র সৈকত নয় এটা বাংলাদেশ চাঁদপুর জেলার মতলব সমুদ্র সৈকত খুবই অসাধারণ তাই এই সমুদ্র সৈকতের ঠান্ডার সময় লোকজন বেড়াতে যায় তাই এখানে দর্শনার্থীরা ঘুরতে আসেন একটি পর্যটক কেন্দ্র সেখানে বসে মনোরম পরিবেশে হাওয়া বাতাস খাওয়ার জন্য এই জায়গাটি করা হয়েছে খুবই অসাধারণ একটি ছবি দেখলে যেন প্রাণটা জুড়িয়ে যায় তাই চাঁদপুর জেলার মতলব সমুদ্র সৈকতের দৃশ্য অসাধারণ দৃশ্য অসাধারণ ভালো লাগলে অবশ্যই লাইক কমেন্ট করবেন আর আমার ছবিতে লাইক করবে কারণ এই মতলবপুর সমুদ্র সৈকতের দৃশ্য দেখার মতো প্রাকৃতিক সৌন্দর্য মনোরম পরিবেশ সাগরের পানির ঢেউ সব মিলিয়ে অসাধারণ একটি দৃশ্য বন্ধুরা আমাকে অসাধারণ বস আপনার যদি ভালো লেগে থাকে আপনি আপনার মোবাইলের স্ক্রিনের ওয়ালপেপারে সেট করে নিতে পারেন খুবই অসাধারণ এই সমুদ্র সৈকতের ছবি
বন্ধুরা এই যে ছবিটা দেখতে পাচ্ছেন বাংলাদেশের উত্তরে কুষ্টিয়া জেলার একটি শহরের উপরে চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট কোর্ট খুবই অসাধারণ এই জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট কোর্ট বাংলাদেশের উত্তরে কুষ্টিয়া জেলার এই চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট কোট বিল্ডিং টা অসাধারন এবং একটি বিল্ডিং দেখতে পাচ্ছেন বিল্ডিং এর সামনে অনেকগুলো গাছ লাগানোর সারি সারি এবং সামনে বিশাল বড় একটি পুকুর দেখলে যেন প্রাণটা জুড়িয়ে যায় তাই এই চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট এই বিল্ডিং এর দৃশ্য অসাধারণ দৃশ্য ছবি এবং অসাধারণ একটি ছবি বন্ধুরা এই ছবিটি আমার কাছে অসাধারণ নিশ্চয়ই তোমাদের এই কুষ্টিয়ার চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট এর বিল্ডিং এর ছবিটা অবশ্যই ভালো লাগবে আর ভাল লাগলে লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করুন
পুকুরপাড়ে আম গাছের উপর দিয়ে একটি বাদী এবং কিছু খড়কুটা দিয়ে তৈরি করা একটি কত সুন্দর কুটির ঘর এই ঘরটির দেখে মনে হয় শিল্পের নিখুঁত হাতে তৈরি করা এই ঘর কত অসাধারণ দৃশ্য মনে ঘরটি একটি পুকুর পাড়ে
আম গাছের উপরে বাঁশ দিয়ে খড়কুটো দিয়ে এই কুটির ঘরটি এত সুন্দর করে তৈরি করেছেন দেখলে যেন প্রাণটা জুড়িয়ে যায় তাই বাংলাদেশের কুষ্টিয়া জেলার একটি অজ পাড়াগাঁয়ের গ্রাম শ্যামপুর শ্যামপুর গ্রামের এই ছোট্ট কুটির ঘাঁটি তৈরি করেছিল একজন শিল্পী তাই এই কুষ্টিয়ায় কুটির শিল্পের একটি দর্শনীয় স্থান হয়ে গেছে এখানে গ্রাম গঞ্জের মানুষের ভিড় করছেন দেখার জন্য কত সুন্দর করে একটি জন্য তৈরি করেছেন কতই না ভাল লাগছে তাই বাংলাদেশের কুষ্টিয়া জেলার শ্যামপুর গ্রামের কুটির ঘর আম গাছের উপরের দৃশ্য অসাধারণ দৃশ্য নিশ্চয়ই তোমাদের এই ছবিটা ভালো লাগবে আর ভাল লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করবেন
একটি জাহাজের ছবি বন্ধুরা সাগরের বুকে জাহাজটি যখন একলা চলতে শিখে সাগরের পানির ঢেউয়ের তালে তালে তখন কতই না ভাল লাগে তাই এই জাহাজটি বাংলাদেশের কক্সবাজার রাঙ্গামাটি টেকনাফ অনেক জায়গায় চলাফেরা করতে থাকে খুবই অসাধারণ এবং দৃশ্যমান এই জাহাজগুলো নদীর বুকে একটি জাহাজ মাঝখান দিয়ে সাগরের ঢেউয়ের তালে তালে চলা জাহাজটি কতইনা অসাধারণ দৃশ্য অসাধারণ দৃশ্য মন কালো সাদা আকাশের মেঘের সাথে সাদা এই জাহাজটি একটি দৃশ্য অসাধারণ দৃশ্য মনে জাহাজের ছবিটি নিশ্চয়ই তোমাদের এই জাহাজের ছবি ভালো লাগবে আর ভাল লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করবেন
এই যে ছবিটা দেখতে পাচ্ছেন বন্ধুরা এটি একটি বিল্ডিং ওঠার ছবি বিল্ডিংয়ের ওঠার এই দৃশ্যটি কতইনা অসাধারণ বিল্ডিংয়ে উঠতে গেলে যে সিঁড়ি বেয়ে উঠতে হয় সেই শরীরের কন্ডিশন টা কতদিন অসাধারণ আর এত সুন্দর মার্বেল পাথর দিয়ে তৈরি করায় বিল্ডিংটি আলোর শয্যায় এবং কতই না কষ্ট সুন্দর লাগছে এই বিল্ডিং এর সিঁড়ি ঘর তাই এই সিঁড়িঘরে দৃশ্যটা আমার কাছে খুবই অসাধারণ একটি অসাধারণ দৃশ্যমান বিল্ডিং এর সিঁড়ি তাই এটা বাংলাদেশের ঢাকা শহরের একটি অভিজাত হোটেলে খুবই দৃশ্যমান ছবিটা ভালো লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আপনারা ঢাকা শহরের হোটেল গুলোতে এই অভিযোগগুলো নিশ্চয়ই ভালো লাগবে আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করবেন
কৃষকের ফসলের ছবি তাই বন্ধুরা দেখতে পাচ্ছেন কৃষক যখন ফসলকে টেবিলে রেখে দিয়েছেন কতই না সুন্দর লাগছে তাই বাংলাদেশের কৃষকের ফসলের জন্য আনন্দ উদ্বৃত্ত হয়ে ওঠে তাই এই ছবিটা তোলা হয়েছে শাহামীরপুর পাংশা রাজবাড়ী বাংলাদেশের উত্তরে রাজবাড়ী জেলার পাংশা উপজেলার শাহমিরপুর গ্রামের একটি অজ পাড়াগাঁয়ের এই ছবিটি খুবই অসাধারণ তাই দেখতে পাচ্ছেন এই ফসলি জমির সাইটে কিছু লাগানো আছে সেই আজকে আমরা বলে থাকি তাই এই আমাদের কাছে খুবই প্রিয় একটি জিনিস তাই আখ খেতে আমরা খুবই ভালোবাসি তাই বন্ধুরা এই শাহামিরপুর গ্রামের পাড়াগাঁয়ের এই কৃষকের ফসলের জমির প্রাকৃতিক সৌন্দর্য মনোরম পরিবেশ উপভোগ করার মতো ছবিটা অসাধারণ দৃশ্যমান এই ছবিটা ভালো লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব
বন্ধুরা এই ছবিটা রাজবাড়ী জেলার পাংশা উপজেলার কাসারি কাসারি পাড়া গ্রামের সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় এর বিল্ডিং এর ছবি তাই পাংশা উপজেলার কাচারী পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের এই বিল্ডিংটা একটি অসাধারণ ছবি বিল্ডিং এর সামনের মাঠ গাছ গাছলা প্রাকৃতিক সৌন্দর্য চোখে ধরার মতো তাই এই স্কুলে সুযোগ্য সুযোগ্য শিক্ষক দ্বারা এখানে অনেকগুলো লেখাপড়া করানো হয় অনেক ছাত্র-ছাত্রী ওইখানে আছে খুবই অসাধারণ দৃশ্য মানেই বিল্ডিং বিল্ডিং আমাদের কাছে খুবই অসাধারণ তাই বন্ধুরা এই রাজবাড়ী পাংশা উপজেলার কাছারিপাড়া এই বিল্ডিং এর ছবি অসাধারণ এবং এর প্রাকৃতিক দৃশ্য ভালো লাগবে আর ভাল লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবে
রজনীগন্ধা ফুলের বাগান হরেক রকম ফুলের বাগানটা যশোর জেলার একটি অজ পাড়াগাঁয়ের গ্রাম কেশবপুর থানার এই কৃষক ফুলের বাগানের চাষ করেছেন জমিতে ফুলের চাষ একটি অসাধারণ দৃশ্য মানুষ তাই এখানে দেখতে পাচ্ছেন রজনীগন্ধা ফুলের চাষ করা হয়েছে তাই কেশবপুর উপজেলার অজ পাড়াগাঁয়ের গ্রামটিতে মানুষেরা কৃষকেরা ফুলের চাষ করে থাকে তাই ফুল হাতে মানায় না ফুল গাছে শোভা পায় খুবই অসাধারণ এই রজনীগন্ধা ফুলের ঘ্রানে মনটা যেন হয়ে যায় তাই কতইনা অসাধারণ তাই ফুলের ঘ্রাণে আবার ফিরে যেতে চাই সেই যশোর জেলার কেশবপুর উপজেলার সেই অজ পাড়াগাঁয়ের গ্রামের এক কৃষকের ফসলের ক্ষেতে রজনীগন্ধা ফুলের ছবিটা খুবই অসাধারণ তাই ভালো লাগলে লাইক বা কমেন্ট করবেন আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করুন
পাথরের উপরে খোদাই করে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ছবি লাগানো হয়েছে যশোর জেলার একটি বিখ্যাত স্থানের তাই বন্ধুরা খুবই অসাধারণ একটি দৃশ্যমান এবং নান্দনিক এই জায়গাটা একটি দর্শনীয় স্থান প্রতিবছর এখানে ঘুরতে আসেন দেখার মত একটি স্থাপনা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ছবি পাথরের উপর খোদাই করা ভাস্কর্য করা একটি অসাধারণ দৃশ্যমান 16 ই ডিসেম্বর উপলক্ষে লাইটিং আলো আঁধারে আলোর সজ্জায় সজ্জিত এই যশোর জেলা দেখলে প্রাণটা জুড়িয়ে যায় তাই বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সজ্জায় সজ্জিত লাইটিংয়ের এই ছবিটা অসাধারণ একটি দৃশ্য ছবি ছবিটা ভালো লাগবে আর ভাল লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করবেন
এই যে ছবিটা দেখতে পাচ্ছেন বন্ধুরা এটি একটি অসাধারণ দৃশ্যমান কারণ 16 ই ডিসেম্বর উপলক্ষে বাংলাদেশের প্রতিটা জেলায় প্রতিটা গ্রাম গঞ্জে প্রতিদানের ভিন্ন ভিন্ন জায়গায় স্থাপন করা হয়েছে নান্দনিক কারণ আমরা শহীদদের স্মরণে 16 কোটি বাঙালি আমরা শহীদ দের জন্য পেয়েছে একটি স্বাধীন বাংলাদেশে তাই এই শহীদদের স্মরণে শহীদের আত্মত্যাগের বিনিময়ে পাওয়া এই স্বাধীন বাংলাদেশে আমরা গর্বিত সাতক্ষীরা জেলা চায়না বাংলা শপিং সেন্টারের এই বিল্ডিং এর একটি অসাধারণ ছবি চায়না বাংলা শপিং কমপ্লেক্সে বিল্ডিংয়ের শহীদদের স্মরণে কত সুন্দর করে সাজানো হয়েছে আলোর সজ্জায় সজ্জিত বিল্ডিং বিল্ডিং এর ছবি প্রাকৃতিক সৌন্দর্য এবং নান্দনিক একটি ছবি
সাতক্ষীরা শহর জজ কোটের সাইটে চায়না বাংলা শপিং সেন্টারে বিল্ডিং প্রাকৃতিক সৌন্দর্য রাতের আঁধারে আলোর সজ্জায় সজ্জিত বিল্ডিং দেখলে যেন প্রাণটা জুড়িয়ে যায় তার ছবিটা সব মিলিয়ে অসাধারণ দৃশ্য ভালো লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করুন
বন্ধুরা এই যে ছবিটা দেখতে পাচ্ছেন এটাও 16 ই ডিসেম্বর এর ছবি কারণ এই ছবিটা কত অসাধারণ এটা যশোর মনিহার হলে সামনের দৃশ্য কতইনা অসাধারণ মনিহার বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় হল তাই হলে সবচেয়ে ভালো ভালো ছবি দেখা যায় তাহলে সামনে দৃশ্যটা কতই না সুন্দর করে সাজিয়েছে সকল শহীদের আত্মত্যাগের বিনিময়ে আমরা পেয়েছি 16 কোটি বাঙালি একটি স্বাধীন বাংলাদেশকে স্বাধীন বাংলাদেশের লাল সবুজের পতাকা আমরা ওড়াবো তাই আমরা এই 16 ই ডিসেম্বর স্মরণ করে থাকে খুবই অসাধারণ এবং দৃষ্টিনন্দন এই মনিহার সিনেমা হল যশোর মনিহার সিনেমা হল এর সামনের দৃশ্য এবং রাতের আলোয় আলোয় ভরা কতইনা অসাধারণ দৃশ্য ছবিটা ভালো লাগলে অবশ্যই লাইক কমেন্ট করবেন আমার চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করবেন
এখানে যে দৃশ্যটা আপনারা দেখতে পাচ্ছেন আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের গ্রামে আজ একটা ছেলের বিয়ে হচ্ছে এবং সে বাসা থেকে সুন্দর করে সেজেগুজে বিয়ে করতে যাচ্ছেন তার একটা চিত্র আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন অনেক মানুষ এখানে রয়েছে তারা সবাই বরের সঙ্গে যাচ্ছে বরযাত্রী বিয়ে করতে এবং বউ আনতে এভাবে আমাদের গ্রামের মানুষের বিয়ে হয় আশাকরি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে বিয়ের অনুষ্ঠানের একটা অসাধারণ দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম আমার এক চাচাতো ভাই যাচ্ছেন বিয়ে করতে আজ মাটিয়া ডাঙ্গা গ্রামের উপর দিয়ে যাচ্ছে ফিংড়ি ইউনিয়ান এ আমারে চাচাতো ভাইয়ের বিয়ে হচ্ছে আজ বিয়ের অনুষ্ঠানের একটা অসাধারণ চিত্র আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন সবাই অনেক আনন্দ বিনোদন করছে সেজেগুজে সবাই মাইক্রো করে বিয়ে করতে যাচ্ছেন তার একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম পর পাঞ্জাবি পড়ে মাথায় বিয়ের টোপর দিয়ে সেজেগুজে দাঁড়িয়ে আছে বিয়ে করতে যাওয়ার অপেক্ষায় সেখানে গ্রামের মানুষের উপস্থিতি রয়েছে আমরা সবাই সেখানে উপস্থিত ছিলাম এভাবে আমাদের গ্রামের মেয়ে ছেলের বিয়ে হয় আশা করি আমাদের ধর্মের বিয়ের কার্যক্রমগুলো আশাকরি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে খুবই সুন্দর সুস্থ সবল এবং অনেক সুন্দর পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন তারপরে আমরা বিয়ে করতে যায় আশাকরি আমাদের এই বিয়ের অনুষ্ঠানের অসাধারণ দৃশ্য দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে এবং প্রতিটা মুহূর্ত অনেক সুন্দর একটা আমাদের বিয়ের অনুষ্ঠানের চিত্র আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন আমরা গিয়েছিলাম এই বিয়ের অনুষ্ঠানে এবং অনেক অনেক ভালো লেগেছে খাওয়া-দাওয়া করেছে আনন্দ-বিনোদন করেছি আশাকরি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে বিয়ের অনুষ্ঠানের একটা অসাধারণ দৃশ্য আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন বিয়ে করতে যাওয়া এবং অসাধারণ মুহূর্ত আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলে এভাবে আমাদের গ্রামের মানুষের বিয়ে হয় বিয়ে করতে যাবার একটা অসাধারণ চিত্র আপনার এখানে দেখতে পাচ্ছেন
এখানে যে দৃশ্যটা আপনারা দেখতে পাচ্ছেন আমি মোঃ রুহুল আমিন আমি আপনাদের গ্রুপের একজন নিয়মিত সদস্য নিয়মিত পোস্ট করি নিয়মিত কাজ করে থাকি আশাকরি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমি আমাদের বাড়ির পুকুর পাড়ে বসে বসে পোস্ট করছে তারই একটা চিত্র আপনারা এখানে দেখতে পারছেন আপনাদের কোম্পানির গেঞ্জি আমার গায়ের রয়েছে আমি যখন পোষ্ট করি তখন গেঞ্জি গায়ে দিয়ে পোস্ট করি কারণ গেঞ্জি গায়ে দিয়ে পোস্ট করতে আমার অনেক অনেক ভালো লাগে এবং খুবই ভালো লাগে এই জন্য আমি গেঞ্জি গায়ে দিয়ে পোস্ট করি এবং আপনাদের এই কোম্পানির গেন্জি কে আমি অনেক অনেক সম্মান করি এবং খুবই যত্ন করে তুলে রাখি আশাকরি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমার এই ছবিটা অসাধারণ ভাবে তোলা হয়েছে এবং আমি খুবই খুশি আজ এজন্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম আমি নিজেকে আশা করি আমার এই অসাধারন ছবিটা দেখে অনেক অনেক ভালো লাগবে আপনাদের আমি আপনাদের কোম্পানির গেঞ্জি গায়ে দিয়ে বসে বসে পুকুর পাড়ে মনের আনন্দে বিনোদনের পোস্ট করছি তার একটা চিত্র আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন আমি অনেক সুন্দর সুন্দর পোস্ট করে থাকি এবং নিয়মিত পোস্ট করি মানুষের সঙ্গে বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা করি কিভাবে পোস্ট করবে পোস্ট সম্পর্কে মানুষের ধারণা দিয়ে থাকি নতুন নতুন সদস্যদের কে আমি খুব সুন্দর করে গান দিয়ে থাকি যে এইভাবে পোস্ট করলে ভালো হয় কিভাবে পোস্ট করতে হয় সব ধরনের বিষয় তাদেরকে আমি জ্ঞান দিয়ে থাকি আশা করি এটা আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে এবং আপনাদের কোম্পানী কে আমি নিয়মিতভাবে সদস্য হতে চাই আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমার এই অসাধারন দৃশ্যটা দেখে পুকুরপাড়ে বসে বসে মনের আনন্দে বিনোদিনী পোস্ট করার একটা অসাধারণ দৃশ্য আমি মোঃ রুহুল আমিন এর অসাধারণ চিত্র আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন
এখানে যে ব্রিজের দৃশ্যটা আপনারা দেখতে পাচ্ছেন এটা আমাদের স্বপ্নের পদ্মা সেতুর একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম 2020 সালের ডিসেম্বর মাসে স্বপ্নের পদ্মা সেতুর কাজ সম্পন্ন করা হয়েছে এবং সেতুকে উন্মুক্ত করে দেওয়া হয়েছে মানুষ চলাচল করছে যানবাহন চলাচল করেছে বিরাট বড় বাংলাদেশের সবথেকে বৃহত্তম পদ্মাসেতুর দৃশ্য আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন রাতের বেলার একটা দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে বাংলাদেশে নয় সারা বিশ্বের সবথেকে সুনামধন্য ব্রে কার্ড অনুযায়ী এই পদ্মা সেতু ত অনেক এগিয়ে রয়েছে বিশ্বের বিভিন্ন দেশের পদ্মা সেতুর এবং বড় বড় সে তুলনায় আমাদের পদ্মা সেতু অনেক দিক দিয়ে এগিয়ে রয়েছে 41 স্পান ব্যবহার করা এই পদ্মা সেতুতে আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের স্বপ্নের পদ্মা সেতুর একটা অসাধারণ চিত্র দেখে প্রতিটা মুহূর্তে বাংলাদেশের মানুষের এটা স্বনামধন্য এবং গৌরবের একটা কাজ চায়না জাপান চীন এগুলা দেশের বড় বড় বৈজ্ঞানিকরা সমান নয় আমাদের বাংলাদেশের এই পদ্মা সেতু তৈরি করা হয়েছে আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে একটা স্বপ্নের পদ্মা সেতুর এবং বাংলাদেশের মানুষের ইতিহাসে সবথেকে বড় সেতুর একটা অসাধারণ দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম 6 কিলোমিটার লম্বা সেতু পদ্মা নদীর উপর দিয়ে তৈরি হয়েছে বাংলাদেশের বিভিন্ন স্থানে সেতু দিয়ে চলাফেরা করতে পারবে এমন এক স্থানে এসে তৈরি করা হয়েছে আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে স্বপ্নের পদ্মা সেতু রাতের বেলার একটা অসাধারণ দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম বাংলাদেশের ইতিহাসে সবথেকে জনপ্রিয় একটা সেতু আপনাদের সামনে উপস্থাপন করতে পেরে একটা অনেক সুন্দর একটা দৃশ্য এটা বাংলাদেশে সব থেকে শ্রেষ্ঠ হয়েছে এখন বর্তমান সময়ে এবং আশা করি ভবিষ্যতেও এই পদ্মা সেতুর শ্রেষ্ঠ হিসেবে থাকবে আমাদের বাংলাদেশে এটা একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করতে পেরে অনেক অনেক খুশি এবং আনন্দিত আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে পদ্মা নদীর উপর দিয়ে পদ্মা সেতুর একটা অসাধারণ দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম অনেক মজবুত এবং খুবই সুন্দর নতুন
16 ডিসেম্বর বিজয় দিবস উপলক্ষে আমাদের এখানে একটা ছেলে মেয়েদেরকে নিয়ে বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়েছিল সেই বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতার একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে এই বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠানের পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠান খেলাধুলার অনুষ্ঠান বাচ্চা ছেলে মেয়েদের কে নিয়ে ফুটবল খেলা বিভিন্ন ধরনের খেলা অংশগ্রহণ করার একটা অসাধারণ দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমরা প্রতি বছর 16 ডিসেম্বর বিজয় দিবস উপলক্ষে বাচ্চা ছেলে মেয়েদের কে নিয়ে আনন্দ-বিনোদনের উৎসব পালন করি তার একটা দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে যে মানুষেরা আনন্দ-বিনোদনের খুব ভালোবাসে আনন্দ-বিনোদন করতে তারা কিভাবে আগ্রহী তারই একটা দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করতে পেরে অনেক অনেক খুশি আমাদের ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মেম্বার গ্রামের মুরুব্বি মানুষের সম্মানীয় মানুষেরা তারা সবাই একত্রিত হয়ে এই খেলার আয়োজন করেছে এবং গ্রামের বিভিন্ন স্থান থেকে মানুষেরা ছুটে এসেছে এই খেলা দেখার জন্য এবং অনেক অনেক সুন্দর বাচ্চা ছেলে মেয়েরা নাচ-গান করেছে আনন্দ-বিনোদন করেছে সব মিলিয়ে অসাধারণ একটা দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে 16 ডিসেম্বর বিজয় দিবস উপলক্ষে সংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানের একটা অসাধারণ দৃশ্য স্থান সাতক্ষীরা জেলা
অনেক সুন্দর টেস্টি সুস্বাদু খাবারের চিত্র আমিআপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে এখানে রয়েছে চুই ঝালের গরুর মাংস রান্না করা এবং বিভিন্ন ধরনের ভিটামিন জাতীয় যা বিভিন্ন দেশের মানুষেরা খেতে এটা বেশী পছন্দ করে বেশীরভাগ এটা বেশি চীন জাপান চায়না কোরিয়া বিভিন্ন দেশের মানুষরা এগুলো খেতে বেশি পছন্দ করে অনেক সুস্বাদু করে তৈরি করা হয়েছে আজ আমাদের বাড়িতে আজ মালয়েশিয়া থেকে একটা মেহমান এসেছিল তিনি আমাদের বাড়িতে এটা খুব সুন্দর করে সুস্বাদু করে তৈরি করেছে আমাদের জন্য এবং তিনি নিজে হাতে তৈরি করেছে খাওয়ার জন্য আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে 15 থেকে 20 প্রকারের মসলা দিয়ে এটা করে নিজের ব্যক্তিগত ভাবে খাওয়ার জন্য তৈরি করেছেন আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমরাও খেয়েছিলাম অনেক টেস্টি এবং খুবই সুস্বাদু আমার জীবনে আজ আমি প্রথমেই অসাধারণ খাবার খেয়েছি আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেকএকটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলামআশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে এই সুস্বাদু এবং টেস্টি মালয়েশিয়ান খাবারের একটা অসাধারণ দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম এটা অনেক অনেক সুস্বাদু এবং ভিটামিন মিনারেল শর্করা আমিষ বিভিন্ন ধরনের জিনিস দিয়ে সমৃদ্ধ করে সংমিশ্রণে এটা তৈরী করা হয়েছে এবং অনেক সুস্বাদু করে তৈরি করা হয়েছে এবং এটাকে খুব ভালো লাগছে আমার আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবএ
এখানে যে চিত্রটা আপনারা দেখতে পাচ্ছেন আমাদের ডিবি ইউনাইটেড হাই স্কুলে আজ গরীব অসহায় মানুষের কম্বল বিতরণ করা হয়েছে তারই একটা চিত্র আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন কয়েক'শ মানুষের ভিতরে শীতবস্ত্র বিতরণ করা হয়েছে আমাদের স্কুলের প্রধান শিক্ষক মোঃ মমিনুর রহমান তিনি তার নিজের ব্যক্তিগত ভাবে গরীব অসহায় মানুষের মাঝে কম্বল বিতরণ করেছে তার একটি চিত্র আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন বর্তমান আমাদের বাংলাদেশে প্রচুর পরিমাণ শীত শীতের মধ্যে মানুষের প্রচুর পরিমাণ সমস্যা হচ্ছে রাতে ঘুমাতে গরীব অসহায় মানুষেরা করা খুব কষ্টকর রাতে ঘুমাতে হতে হচ্ছে এজন্য তাদেরকে সাহায্য সহযোগিতা করার জন্য একটা করে খুব সুন্দর অনেক এবং অনেক নরম দেখে অনেক ভালো দেখে একটা কম্বল দেওয়া হয়েছে তার একটা দৃশ্য দেখতে পাচ্ছেন আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে কম্বল বিতরনের একটা অসাধারণ দৃশ্য দেখে প্রতি মাসে শীতের মৌসুমে মানুষের মাঝে কম্বল বিতরণ করা হয় আমাদের স্কুলের প্রধান শিক্ষক তিনি নিজের ব্যক্তিগত টাকা দিয়ে কম্বল বিতরণ করে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগলো কম্বল বিতরনের একটা অসাধারণ দৃশ্য সেখানে মানুষের এগিয়েছে আমরা সাহায্য-সহযোগিতা করে দিয়েছিলাম মানুষের কম্বল বিতরণ করার সময় আমরা হাতে হাতে দিয়ে দিয়েছিলাম এভাবে অনেক মানুষের সাহায্য করেছি এবং আমি নিজে ব্যক্তিগতভাবে মানুষের টাকা পয়সা বিভিন্ন জিনিস কেনাকাটা করে দিয়েছে শীতের সময় গরীব অসহায় মানুষের অনেক সম্মানজনক একটা কাজ এবং এটা নতুন একটা দৃশ্য উপস্থাপনা করলাম আমাদের স্কুলে কম্বল বিতরণআশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে কম্বল বিতরণ করার একটা অসাধারণ মুহূর্ত অনেক গরীব অসহায় পরিবার অনেক অনেক খুশি হয়েছে তারা কম্বল শীতের দিনে অনেক আরাম করে ঘুমানোর জন্য তারা অনেক অনেক খুশি আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগে মানুষের সাহায্য সহযোগিতার একটা অসাধারণ দৃশ্য
এখানে যে দৃশ্যটা আপনারা দেখতে পাচ্ছেন আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আজ আমাদের গ্রামে এবং পার্শ্ববর্তী একটা গ্রাম কাজিরবাসা যুব সংঘের আয়োজিত এক ঐতিহ্যবাহী লাঠি খেলার আয়োজন করা হয়েছে এই খেলার একটা অসাধারণ দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে হাজার হাজার মানুষের সেখানে একত্রিত হয়েছে এ লাঠি খেলা দেখার জন্য এটা একটা ঐতিহ্যবাহী খেলা গ্রামের মানুষের সব থেকে বেশি জনপ্রিয় আনন্দপ্রিয় একটা খেলার দৃশ্য আজ আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমরা সেখানে গিয়েছিলাম এবং সেখানে গিয়ে আমরা অনেক আনন্দ বিনোদন করেছি সবাই একসঙ্গে মিলে তার একটা দৃশ্য আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন বাস্তব একটা দৃশ্য আমরা নিজের চোখে দেখেছি লাঠিখেলা অনেক আনন্দ প্রিয় একটা খেলা তার একটা দৃশ্য আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম কাজির বাসা যুব সংঘ কর্তৃক আয়োজিত এই লাঠি খেলার আয়োজন করা হয়েছে গ্রামের মেম্বার চেয়ারম্যান সবাই একসঙ্গে মিলে খেলার আয়োজন করেছে সবাই একত্রিত হয়ে আনন্দ-বিনোদন করতে পেরে অনেক অনেক খুশি এবং আনন্দিত আশাকরি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে এর লাঠি খেলার একটা অসাধারণ দৃশ্য দেখে এখানে ছেলে-মেয়ে নারী-পুরুষ সবার উপস্থিতি রয়েছে সবাই একত্রিত হয়ে আনন্দ-বিনোদন করছে মজা করছে তারই একটা বাস্তব অসাধারণ দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরতে পেরে অনেক অনেক খুশি এবং আনন্দিত সাতক্ষীরা জেলার ঐতিহ্যবাহী একটা খেলা আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করছি সত্যি অনেক আনন্দ এবং মজার জিনিস একটা লাঠি খেলা এটা যোগ যোগ বছর ধরে চলে এসেছে এই খেলাটা এবং অনেক আনন্দ প্রিয় একটা খেলার দৃশ্য এবং মানুষের আনন্দ-বিনোদন করছে তার একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম
এখানে যে দৃশ্যটা আপনারা দেখতে পাচ্ছেন আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আজ দুপুর বেলায় গ্রামের ছেলেদের কে মেয়েদেরকে নিয়ে একটু খাওয়া-দাওয়ার আয়োজন করেছিলাম ছোট একটা বনভোজনেরআয়োজন করেছিলাম গ্রামের ছোট ছোট ছেলে মেয়েদের কে নিয়ে তারা আজ অনেক খুশি হয়েছে আনন্দ-বিনোদন করে আমরা এক মাঠের মাঝখানে খাওয়া-দাওয়া করছে দুপুর বেলায় বসে বসে তার একটা চিত্র আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন এই অসাধারণ দৃশ্য আমাদের জীবনে একবার ঘটে গিয়েছিল আমরা যখন ছোট ছিলাম তখন আমাদের গ্রামের বড় ভাইয়েরা আমাদেরকে নিয়ে এমন পিকনিকের আয়োজন করত এবং আমরা সবথেকে বেশি খুশি হতাম যে সবাই একসঙ্গে মিলে একটু খাওয়া-দাওয়া করতে পেরে আশাকরি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে ছোটবেলার একটা অসাধারণ দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম এই জীবনের স্মৃতি গুলো প্রতিটা মুহূর্ত মনে পড়ে যায় ছোট বাচ্চাদের অসাধারণ দৃশ্য গুলো দেখলে আমরা এই বাচ্চাদের মতন এমন ছোট বেলার জীবন পার করে এসেছি অনেক আনন্দ বিনোদনের মধ্যে সাদৃশ্য আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম অনেক আনন্দ বিনোদনের একটা দৃশ্য যে আজ দুপুর বেলায় আমাদের গ্রামে বাচ্চা ছেলে মেয়েদেরকে নিয়ে একটা বনভোজনের পিকনিকের আয়োজন করেছি তার একটা চিত্র আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের এই অসাধারণ দৃশ্যটা দেখে অনেক খাওয়া-দাওয়া করলাম মজা করলাম আনন্দ বিনোদন করলাম এটা আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করতে পেরে অনেক অনেক খুশি আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে গ্রামের ছেলে মেয়েদের কে নিয়ে পিকনিকের আয়োজন করার অসাধারণ দৃশ্য
এখানে যে চিত্রটা আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপনা করছি আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের গ্রামে রাতের বেলায় আমরা একটা পিকনিকের আয়োজন করেছিলাম এই পিকনিকের রান্না করা হচ্ছে বাবুর্চি এনে বাবুর্চিরা খুব সুন্দর করে রান্না করছে গরুর মাংস ডাউল আর বিভিন্ন ধরনের সবজি দিয়ে খুব সুন্দর করে তারা রান্না করছে তার একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের গ্রামের একজন ছেলে সেখানে রয়েছে আমরা সবাই একত্রিত হয়ে রান্না করার কাজে নিয়োজিত রয়েছে আমিও রান্না করার কাজে অনেক অনেক সাহায্য সহযোগিতা করেছিলাম আমি যতোটুকু পারি ততটুকু সাহায্য সহযোগিতা করেছি রান্না করার কাজে আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের গ্রামের ছেলে মেয়েদেরকে নিয়ে পিকনিক করার এবং রান্না করার একটা অসাধারণ দৃশ্য সামনে উপস্থাপন করতে পেরে অনেক অনেক খুশি এবং আনন্দিত এই অসাধারণ দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম আমরা প্রতিবছর একবার করে রান্না করা এবং পিকনিক করার আয়োজন করে থাকিআজও আমরা এই পিকনিকের আয়োজন করেছিলাম এবং অনেক অনেক খাওয়া-দাওয়া করেছি আনন্দ মজা করেছি গ্রামের সকল পর্যায়ের ছেলেমেয়েদের কে নিয়ে একটা পিকনিক করার এবং রান্না করার একটা অসাধারণ দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম কারন গ্রামের সবাই যদি একত্রিত হয়ে একটু আনন্দ বিনোদন করা যায় তাহলে সবার অনেক অনেক ভালো লাগে সবাইকে নিয়ে আনন্দ বিনোদন করা একটা অন্যরকম আলাদা মজা এবং অনেক অনেক আনন্দ মজা পাওয়া যায় এজন্য সবাইকে নিয়ে আমরা আনন্দ মজা করেছিলাম এবং রান্না করার একটা অসাধারণ দৃশ্য আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে খুব সুন্দর করে শুদ্ধ করে টেস্ট করে রান্না করা হচ্ছে রাতের বেলা রান্না করার একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করতে পেরে অনেক অনেক খুশি এবং এটা আমাদের গ্রামে পিকনিক করা রান্না
এখানে যে দৃশ্যটা আপনারা দেখতে পাচ্ছেন আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের সাতক্ষীরা ওভারব্রিজের একটা দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম আমাদের সাতক্ষীরা জেলার একমাত্র এটাই ওভারব্রিজ এখান দিয়ে মানুষরা যাতায়াত করেন ওভার ব্রিজ তৈরি করার মূল উদ্দেশ্য হচ্ছে মানুষের যানজট ঝামেলা মুক্ত থেকে বিরত থাকার এবং খুবই দ্রুত তাদের গন্তব্য স্থানে পৌঁছে যাওয়ার জন্য এই ওভার ব্রিজ তৈরি করা হয়েছে সাতক্ষীরা জেলা পাটকেল ঘাটা ইউনিয়নের একজন চেয়ারম্যান তিনি খুব সুন্দর করে মানুষের উপকার এবং মানুষের সাহায্য সহযোগিতা করার জন্য মানুষের ঝামেলা থেকে মুক্ত করার জন্য ওভার ব্রিজ তৈরি করে দিয়েছেন এবং ওভারব্রিজ দিয়ে মানুষরা চলাচল করছে প্রচুর পরিমাণ যানবাহন চলাচল করছে তার একটা চিত্র আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে সাতক্ষীরা ওভারব্রিজের একটা অসাধারণ দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম আমি ওভারব্রিজে গিয়েছিলামপ্রতিদিন হাজার হাজার মানুষ এরা এখান থেকে বিভিন্ন স্থানে যায় এবং খুবই দ্রুত তাদের গন্তব্য স্থানে পৌঁছানোর জন্য এই ওভার ব্রিজের উপর দিয়ে ওভারব্রিজের নিচে দিয়ে মানুষরা চলাচল করে আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে সাতক্ষীরা জেলার একটা সুনামধন্য ওভার ব্রিজের একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরতে পেরে অনেক অনেক খুশি এবং আনন্দিত এটা অনেক সুন্দর একটা দৃশ্য আমাদের সাতক্ষীরা জেলার ইতিহাস সৎখিরা জেলার গৌরবের একটা অসাধারণ চিত্র আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম প্রতিটা মুহূর্তে অনেক সুন্দর এবং এটা সাতক্ষীরা জেলার একটা স্বনামধন্য ওভারব্রিজ সাতক্ষীরা পাটকেলঘাটা ইউনিয়নে অবস্থিত
একটি স্কুল বা বিল্ডিং মাঠ প্রাকৃতিক সৌন্দর্য এই ছবিতে দেখতে পাচ্ছেন বন্দর কত ইন অসাধারণ দুইটা দুইটা ভবন দেখতে পাচ্ছেন খুবই দৃশ্য মন্দিরটা এটা আপনার অলংকারপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় বিল্ডিং খুবই অসাধারণ এবং দেখলেও প্রাণটা জুড়িয়ে যায় তাই অলংকারপুর এই প্রাইমারি স্কুল ভবন এবং সামনের মাঠ প্রাকৃতিক সৌন্দর্য কতইনা অসাধারণ বালিয়াকান্দি রাজবাড়ী জেলার এটা অসাধারণ দৃশ্যমান একটি স্কুল এখানে সুযোগ্য শিক্ষক দ্বারা ছাত্রছাত্রীদের লেখাপড়া করানো হয় খুবই অসাধারণ অলংকারপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের বিল্ডিং এর সামনের মাঠ সুন্দর খুবই ভালো লাগলো ছবিটা লাইক বা কমেন্ট করবেন আমার চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব
বন্ধুরা এই যে ছবিটা দেখতে পাচ্ছেন পিছনে একটি অসাধারন একটি বিল্ডিং বিল্ডিং এ যাওয়ার জন্য সামনে কত সুন্দর করে একটি ব্রিজ তৈরি করা হয়েছে এটা একটি অসাধারণ দিচ্ছো এটা আমাদের সাতক্ষীরা জেলার একটি কফি শপ খুবই অসাধারণ এই কফি শপ এর নামকরণ করা হয়েছে সাতক্ষীরা লেক ভিউ কামান নগর গ্রামের ভিতরে অবস্থিত তাই এই লেখাটা খুবই দৃশ্যমান কত সুন্দর করে
ইস্পাত দিয়ে স্টিল জাতীয় এঙ্গেল দিয়ে তৈরি করেছেন যাওয়ার জন্য তাই দেখতে পাচ্ছেন এই বিল্ডিং এর সামনে একটি ছেলে দাঁড়িয়েছেন একটি সানগ্লাস চোখে দিয়ে কতই না সুন্দর দেখে মনে হয় মহানায়ক কতইনা অসাধারণ দৃশ্যমান এই ছবিটি সাতক্ষীরা জেলার কমলনগর এই স্থানটি দৃশ্যমান এই ছেলেটির নাম সবুজ খুবই অসাধারণ এবং দুরন্ত কিশোর ছেলেটি আমার এক ছোট ভাই তাই খুবই অসাধারণ ছবি বন্ধু আমার কাছে খুবই ভালো লেগেছে ছবিটা ভালো লেগে থাকে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবে
সূর্যের কালার যখন হলুদ হয়ে যায় কতই না ভাল লাগে তাই বন্ধুরা এই যে ছবিটা দেখতে হচ্ছে একটি মাঠের ভিতরে বা বিলের ভিতর থেকে এই ছবিটা তোলা হয়েছে খুবই অসাধারণ এই সূর্যের কিরণ তাই এই সূর্যের কিরণে এই মাঠটা কত সুন্দর রঙিন হয়ে গেছে প্রাকৃতিক সৌন্দর্য উপভোগ করার মতো নিয়ে আসার সময় পড়ন্ত বিকেলে সূর্য যখন হয়ে যায় তখন কতই না ভাল লাগে তাই দেখতে পাচ্ছেন এই সূর্যের কিরণ এর সামনের দিকটা কতই না অসাধারণ দেখতে পাচ্ছেন সামনে একটি গাছ আছে কিছু প্রাকৃতিক সৌন্দর্যে ঘেরা মাঠ কত সুন্দর আকাশের সূর্যের সাথে মাঠের ছবিটা একটি দৃশ্যমান হয় তাই এই সূর্যের কিরণে কিরণে মাঠের দৃশ্য অসাধারণ দৃশ্য প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের লীলাভূমি তাই এই ছবিটা তোলা হয়েছে আমাদের সাতক্ষীরা জেলা মাটিয়াডাঙ্গা গ্রামের একটি মাঠের ভিতর থেকে খুবই অসাধারণ এই সূর্যের কিরণ এর জন্য ছবিটি যদি ভালো লেগে থাকে আপনি আপনার মোবাইলের স্ক্রিনে ওয়ালপেপারে সেট করে নিতে পারেন আর আপনাদের যদি ছবিটা ভালো লেগে থাকে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আমার চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করুন
বাংলাদেশের উত্তরে একটি অসাধারণ দৃশ্যমান গ্রাম এই গ্রামের নাম হাতির বিড়ি গ্রাম তাই এটা বাংলাদেশের উত্তরে নওগাঁ জেলায় অবস্থিত এই হাতিরঝিল দেখতে পাচ্ছেন এই বর্ষার সময় প্রচুর পরিমাণ পানি জন্ম নেয় তাই এই বিলের ভিতর একটি ছোট্ট একটি গ্রাম কতই না সুন্দর চাঁদের পানি থইথই করছে আর মাছ প্রচুর পরিমাণ হয়েছে তার ভিতরে একটি গ্রাম কতইনা সুন্দর তাই দেখতে পাচ্ছেন সবুজে মোড়ানো সবুজের চাদরে মোড়ানো এই গ্রামটি গাছ গাছরা মাঝখানে কিছু ঘরবাড়ি কতইনা দৃশ্যমান তাই হাতিলের এই দৃশ্যটা আমার কাছে অসাধারণ নওগাঁ জেলার একটি দর্শনীয় স্থান এখানে প্রতিবছর অনেক মানুষের সময় বেড়াতে আসে তাই ছবিটা দর্শনীয় হয়ে উঠেছে তাই ভাল লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করে
সকালবেলা শীতের সকালে ঘোরাঘুরি খুবই অসাধারণ তাই বন্ধুরা দেখতে পাচ্ছেন বড় ভাই ছোট ভাইকে একটি গাড়িতে বসিয়ে নিয়ে শীতের সকালে চালিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন রাস্তার উপর দিয়ে কতইনা সুন্দর বড় ভাইয়ের দায়িত্ব ছোট ভাইয়ের মন জুড়ানো খুবই অসাধারণ তাই এই যে রাস্তা দিয়ে বড় ভাই ছোট ভাইকে গাড়ি করে নিয়ে যাচ্ছেন খুবই অসাধারণ এই বিয়ারিং গাড়ি চালাতে খুব ভালো লাগে এই গাড়ি চালাতে তাই বন্ধুরা এই ছবিটা দেখার মত এই ছবিটা তোলা হয়েছে আমাদের সাতক্ষীরা জেলা ঝাউডাঙ্গা গ্রামের একটি রাস্তার সাইট থেকে খুবই অসাধারণ এই রাস্তাটা তাই শীতের সকালে কুয়াশা দৌড়ানোর সময় এই ছবিটা একটি দৃশ্যমান ছবি তাই অবশ্যই ভালো লাগবে আমার দেখা একটি অসাধারণ দৃশ্য ছবি
আপনি আপনার মোবাইলের স্ক্রিনে ওয়ালপেপারে সেট করুন এবার আপনাদের যদি এই সকালে কুয়াশার চাদর মোড়ানো ছবিটা যদি ভালো লেগে থাকে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করবেন
বন্ধুরা এই যে ছবিটা দেখতে পাচ্ছেন কতইনা অসাধারণ একটি দৃশ্য মাং ছবি দেখতে পাচ্ছেন একজন গ্রামের মানুষ একটি উজ্জ্বল আর একটি ঘোড়া নিয়ে চলে গেছেন তার গন্তব্যে খুবই অসাধারণ দেখতে পাচ্ছেন জাল দিয়ে মাছ মারার জন্য বিলিয়ে চলে গেছে তাই এই ছবিটা এমনই সময় তোলা সারাদিন প্রাকৃতিক সৌন্দর্য সবুজে ঘেরা তাই আমাদের সাতক্ষীরা জেলা থেকে প্রায় 5 কিলোমিটার দূরে গোবিন্দপুর মাটিয়াডাঙ্গা এর মাঝখানে একটি বিল খুবই অসাধারণ এই বিলের মাঝখানের তাই অবশ্যই দেখতে পাচ্ছেন একজন মানুষ সে জাল আর খাড়া নিয়ে চলে গেছেন মাছ ধরতে তাই মাসে পড়েছে খুবই অসাধারণ দৃশ্য মানেই খাল এর প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের ছবিটা ভালো লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করুন
সবুজ শামোলিমা বাংলাদেশ আমাদের এই অসাধারণ দৃশ্য মনছবি তাই এটা নওগাঁ জেলার বদলগাছী গ্রামের একটি রাস্তার দৃশ্য দেখতে পাচ্ছেন বন্ধুরা বদলগাছী গ্রামের একটি ছোট্ট কুঁড়ে ঘর তার সামনের দিকটা কতই না অসাধারণ কারণ ঘরের সামনে সবুজে ঘেরা মাঠ এবং ছোট্ট একটি পুকুর সব মিলিয়ে অসাধারণ দৃশ্যমান তাই নওগাঁ জেলার বদলগাছী গ্রামের কুড়িঘর এবং সামনের পুকুর এবং সবুজে ঘেরা ঘাট মাঠ মিলিয়ে অসাধারণ তাই নওগাঁ জেলায় একটি দর্শনীয় স্থান এবং নওগাঁ জেলায় অনেক কিছু দেখার আছে তাই এই বদলগাছি গ্রামের এই প্রাকৃতিক সৌন্দর্য চোখে পড়ার মতো তাই বন্ধুরা আমার কাছে অসাধারণ একটি ছোট্ট কুড়িঘর গাছ গাছের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য মনোরম পরিবেশ গ্রামের দৃশ্য অসাধারণ একটি দৃশ্য নিশ্চয়ই তোমাদের এই ছবিটা ভালো লাগবে আর ভাল লাগলে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবেন আর আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করুন
বন্ধুরা এই যে ছবিটা দেখতে পাচ্ছেন এটা ইকো পার্ক যশোর জেলায় ইকোপার্ক নামে একটি পার্ক আছে খুবই অসাধারণ দৃশ্যমান এটা পর্যটকদের জন্য একটি দর্শনীয় স্থান এখানে প্রতিবছর অনেক দেশি-বিদেশি দর্শনার্থীরা ঘুরতে আসেন দেখার মত একটি স্থাপনা এই যশোর জেলার ইকোপার্ক ইকোপার্ক টা অবস্থিত ইন্দিরা বাঘারপাড়া যশোর বাঘারপাড়া যশোর ইকোপার্কে একটি অসাধারণ তাই দেখতে পাচ্ছেন একটি বটগাছ খুবই অসাধারণ এই বটগাছটি দেখলে প্রাণটা জুড়িয়ে যায় এই বটগাছের নিচে মনোরম পরিবেশে গল্প করাকরি করা যায় তাই ইকো পার্কের ভিতরে সবচেয়ে একটি দৃশ্যমান ছবি বটগাছটি বট গাছের সামনে সবুজ ঘাস প্রাকৃতিক সৌন্দর্য লীলাভূমি এই ইকো পার্কের ভিতর দৃশ্যটা সব মিলিয়ে এই ছবিটা আমার দেখা একটি অসাধারণ ছবি নিশ্চয়ই তোমাদের এই ছবিটা পছন্দ হবে তাই ইন্দিরা বাঘারপাড়া যশোর ইকোপার্কে ছবিটা যদি পছন্দ হয়ে থাকে অবশ্যই লাইক বা কমেন্ট করবা আমার এই চ্যানেলটা সাবস্ক্রাইব করবা
এখানে যে দৃশ্যটা আপনারা দেখতে পাচ্ছেন আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের গ্রামে আজ একটা খাওয়া-দাওয়া অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছিল গ্রামের মানুষেরা সবাই একত্রিত হয়ে সবার কাছ থেকে কিছু কিছু টাকা তুলে সবাই একত্রিত হয় একটা খাওয়া-দাওয়ার আনন্দ মজার একটা পিকনিক করার মতন আয়োজন করা হয়েছিল তারই একটা চিত্র আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন আমরা গ্রামের মানুষেরা সবাই একত্রিত হয়ে আনন্দ-বিনোদন করার জন্য একটু খাওয়া-দাওয়ার আয়োজন করে থাকি কারণ খাওয়া-দাওয়া করলে গ্রামের মানুষেরা সবাই একত্রিত হলে মানুষের মন ভালো থাকে আনন্দ বিনোদনের মধ্যে থাকা যায় অনেক অনেক ভালো লাগে সেই জন্য আমরা আজ একটা পিকনিকের অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছি গ্রামের সকল মানুষের একত্রিত হয়ে তারই একটা দৃশ্য আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন মহিলারা একত্রিত হয়ে বিভিন্ন ধরনের জিনিস তারা কোটা বাছা করে আলু পিয়াজ রসুন এগুলো তারা পরিষ্কার করছেন তারই একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম এভাবে আমরা প্রতি মাসে একবার করে আনন্দ-বিনোদন করি এটা আমাদের অনেক অনেক ভালো লাগে আমরা সবাই একসঙ্গে মিলে করতে অনেক অনেক ভালোবাসি মজা করে খাওয়া দাওয়া করলাম গরুর মাংস অনেক সুন্দর টেস্ট এবং সবাই একত্রিত হয়ে খাওয়া-দাওয়া করার একটা অন্যরকম মজা এবং আনন্দ বিনোদন হয় আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে গ্রামের মানুষের একত্রিত হয়ে একটা পিকনিক করার অনুষ্ঠানের দৃশ্য এবং এখানে সকল প্রকার জিনিস পরিষ্কার করা হচ্ছে সবাই একত্রিত করে কাজ কাম করছে তার একটা চিত্র আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের গ্রামের মহিলাদের পুরুষেরা সবাই একত্রিত হয়ে পিকনিকের আয়োজন করার রান্না করার কাজে নিয়োজিত রয়েছে বিভিন্ন ধরনের জিনিস তারা পরিষ্কার পরিছন্নতা করেন খুব সুন্দর করে রেডি করে তার একটা দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম এখানে উপস্থিত রয়েছেন আমার চাচি আমার মা আমার আব্বু আমার খালা আমার দাদী নানী এখানে সবাই উপস্থিত রয়েছেন এবং অনেক অনেক ভালো লাগছে আজ এই খাওয়া-দাওয়া অনুষ্ঠানের আয়োজন করতে পেরে সবাই একত্রিত হয়ে খাওয়া দাওয়া করলাম অনেক আনন্দ বিনোদন মজা করলাম আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের এই অসাধারণ দৃশ্যটা দেখে এবং গ্রামের মানুষকে নিয়ে একসঙ্গে করে আনন্দ বিনোদনের একটা চিত্র অনেক জনপ্রিয় একটা দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম পিকনিকের চিত্র
জাহানাবাজ প্রাইমারি স্কুল মাঠ সংলঙ্গ বিরাট এক আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়েছিল সেখানে হাজার হাজার মানুষের সমাগম হয়েছিল গ্রামের মহিলারা পুরুষের সবাই সেখানে একত্রিত হয়েছিল বর্তমান সময়ে দেশের উন্নয়ন নিয়ে সেখানে কিছু কথা হয়েছিল তারই একটা চিত্র আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম এই স্কুল মাঠে প্রতিবছর গ্রামের উন্নয়ন মানুষের উন্নয়ন নিয়ে বিশেষ মিটিং এবং আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়ে থাকে এই আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন আমাদের সাতক্ষীরা জেলার 2 আসনের এমপি মোস্তাক আহমেদ রবি এবং আরো উপস্থিত ছিলেন আমাদের ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মেম্বার মহিলা মেম্বার আরো গ্রামের মানুষের  উপস্থিত ছিলেন আশাকরি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের স্কুল মাঠে বিশাল এক জনসভায় অসাধারণ দৃশ্য এখানে মানুষেরা মতবিনিময় সভায় করেছিলাম মানুষের মতামত সেখানে উত্তোলন করা হয়েছিল কিভাবে আমাদের সমাজকে এগিয়ে নিয়ে যেতে হবে কীভাবে আমাদের মানুষকে সহযোগিতা করতে হবে বর্তমান সময়ে করোনা ভাইরাস সম্পর্কে কিছু কথা বলা হয়েছিল মানুষের সচেতন করার জন্য আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে এই অসাধারণ দৃশ্যটা দেখে প্রতিবছর এই ডিসেম্বর মাসের 12 তারিখে এই আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়ে থাকে আজ এই আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়েছিল মাঠে প্রচুর পরিমাণ মানুষ ছেলেমেয়ে নারী পুরুষ মহিলা সবার সেখানে উপস্থিত রয়েছে এবং সবাই উপস্থিত থেকে এই আলোচনা সভা কে সুন্দর করে সুষ্ঠুভাবে পরিচালনা করার দায়িত্ব ছিলাম আমি আশিক ভাই আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমার এই আলোচনা সভা পরিচালনার দায়িত্ব হিসেবে আমি অনেক অনেক খুশি আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের গ্রামে এই স্কুল মাঠে বিকাল বেলায় মতবিনিময় সভার একটি অসাধারণ দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম
এখানে যে দৃশ্যটা আপনারা দেখতে পাচ্ছেন আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের গ্রামের একটা নতুন রাস্তা আজ উদ্বোধন করতে এসেছে আমাদের উপজেলার চেয়ারম্যান আসাদুজ্জামান বাবু আমাদের ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান বাবু সবাই একসঙ্গে মিলে আজ আমাদের এই রাস্তা উদ্বোধন করতে এসেছে এবং শুভ উদ্বোধন করেছে তারা গ্রামের প্রচুর পরিমাণ মানুষেরা সেখানে উপস্থিত রয়েছে আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের গ্রামের রাস্তা নতুন করে তৈরি করার একটা উদ্যোক্তারা গ্রহণ করেছেন অনেক জনপ্রিয় একটা দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমরা সেখানে উপস্থিত ছিলাম আজকে আমাদের ইউনিয়নের মানুষেরা সবাই একত্রিত হয়ে আজ একটা আনন্দ উৎসব পালন করেছে যে আমাদের রাস্তাটা নতুন করে তৈরি হচ্ছে সেই উপলক্ষে খুব সুন্দর করে তার আনন্দ বিনোদন করেছে এবং গ্রামের সকল মানুষেরা সেখানে উপস্থিত রয়েছেন চেয়ারম্যান মেম্বার মহিলা মেম্বারের সভায় উপস্থিত রয়েছে উপস্থিত থেকে আমাদের এই রাস্তাটা নতুন করে তৈরি করে একটা উদ্যোগ গ্রহণ করেছে এবং আমরা দীর্ঘ দুই মাসের ভিতরে নতুন রাস্তা পেয়ে যাব আশা করি এটাই আমাদের আশা এটাই আমাদের কামনা যথেষ্ট সুন্দর করে মজবুত করে রাস্তা তৈরি করা হবে আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে এটা অত্যন্ত জনপ্রিয় একটা দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম অনেক জনপ্রিয় এই দৃশ্যটা রাস্তা উদ্বোধন করার একটা অসাধারণ দৃশ্য সামাজিক মূলক কাজ দেশাত্মবোধক দেশের উন্নয়নের কাজে সমাজের উন্নয়নের কাজ জনগণের উন্নয়নের জনগণের সুবিধা পৃথিবীর সব থেকে মূল্যবান সম্পদ মানুষ মানুষের উন্নয়নের জন্যে এগুলা করে থাকে সরকার রাস্তা তৈরি হয়ে গেলে মানুষেরা খুব সুন্দরভাবে পরিষ্কার পরিছন্নতা ভাবে হেঁটে চলা ফেরা করতে পারবেন এ জন্য তারা সবাই রাস্তা উন্নয়নের কাজে এগিয়ে যাচ্ছে তারই একটা চিত্র আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন এটা সুপারি ঘাটা ব্রিজ এর পার্শ্ববর্তী খুব সুন্দর করে তৈরি করা হচ্ছে এবং এটা নতুন করে পাকা করে তৈরি করা হবে আমাদের ব্রহ্মরাজপুর ইউনিয়নের ভিতর একটা নতুন রাস্তার দৃশ্য আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন এবং শুভ উদ্বোধন করা হয়ে গিয়েছে
এখানে যে দৃশ্যটা আপনারা দেখতে পাচ্ছেন আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের বাজারের রাস্তা খুব সুন্দর করে পরিষ্কার পরিছন্নতা করা হচ্ছে গ্রামের মানুষেরা সেখানে রয়েছে সবাই একসঙ্গে মিলে কাজ কাম করছে রাস্তায় উন্নয়নের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে বড় একটা মেশিনের মাধ্যমে রাস্তা টা খুব সুন্দর করে পরিষ্কার করার চেষ্টা করা হচ্ছে এবং খুব দ্রুত ময়লা নিষ্কাশন হয়ে যাচ্ছে রাস্তা থেকে তার একটা চিত্র আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন মানুষেরা তাদের প্রাণ চেষ্টা করে রাস্তা নতুন করে তৈরি করার একটা পদ্ধতি অবলম্বন গ্রহণ করেছে তার একটা চিত্র আমি আপনাদেরআপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে রাস্তাগুলো খুব সুন্দর করে পরিষ্কার পরিছন্নতা করার একটা অসাধারণ দৃশ্য আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন এভাবে ব্রামের রাস্তা শহরের রাস্তায় উন্নয়নের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে বাংলাদেশ সরকার প্রতিটি গ্রামে গ্রামে রাস্তাগুলআশা করি এটা দেখে সুন্দর করে মেরামত করছে মেশিনের মাধ্যমে রাস্তাগুলো পরি পরিষ্কার পরিছন্নতা করে নতুন করে তৈরি করছে দিকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছে মেশিনের মাধ্যমে খুব সুন্দর করে পরিষ্কার পরিছন্নতা করার একটা অসাধারণ চিত্র আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন প্রতিটা মুহূর্তে চিত্রটা অসাধারণ আমি সেখানে উপস্থিত ছিলাম আমি সেখানে উপস্থিত থেকে অনেক সুন্দর করে ছবিটা তুলেছি এবং আমি আপনাদের সামনে একমাত্র উদ্দেশ্য পোস্ট করেছে এটা হলো আমাদের রাস্তার এবং আমাদের বাজারের যে উন্নয়নের একটা জোয়ার বয়ে যাচ্ছে এটাই আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম প্রতিটা সময় প্রতিটা মিনিটে মানুষের এবং সমাজের উন্নয়ন হচ্ছে তারই একটা বাস্তব দৃশ্য আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের গ্রামের উন্নয়নের একটা অসাধারণ দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম এবং আমাদের রাস্তার একটা অসাধারণ দৃশ্য প্রতিটা মুহূর্তে এই শব্দগুলো অনেক অনেক ভালো লাগে এবং এটা মানুষের উন্নয়নের দৃশ্য
এখানে যে দৃশ্যটা আপনারা দেখতে পাচ্ছেন আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে বিকালবেলা আনন্দ ভ্রমণ করতে গিয়ে মাছখোলা ব্রিজের উপরে ফুচকা দোকান রয়েছে সেখানে মানুষেরা বসে বসে ফুচকা খাচ্ছ তার একটা দুঃস্বপ্ন দেখতে পাচ্ছেন অনেক জনপ্রিয় একটা ফুচকার দোকান আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরলাম প্রতিদিন বিকালবেলা ছেলেমেয়েরা এখানে আসে ফুচকা খেতে অনেক আনন্দ বিনোদন করতেন আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে এই ফুচকার দোকানের অসাধারণ দৃশ্য দেখে আমাদের সাতক্ষীরা জেলার ভিতরে সবথেকে সুন্দর এখানে ফুচকা তৈরি করা হয় অনেককে জনপ্রিয় একটা দোকান নদীর ধারে এই দোকান টা দেওয়া হয়েছে আনন্দ ফুচকা চটপটির দোকান নামে পরিচিত আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমার এই অসাধারণ দৃশ্যটা দেখে আমি ব্রিজ উপরে ঘুরতে গিয়েছিলাম বিকাল বেলা বন্ধুদের কে বান্ধবীদেরকে এবং সেখান থেকে আমি তাদেরকে ফুচকা খাওয়াই ছিলাম তার একটা চিত্র আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন এখানে প্রতিদিন সবাই মানুষ ছেলেমেয়েরা এসে আনন্দ-বিনোদন করে এবং ফুচকা খাই অনেক জনপ্রিয় একটা ফুচকার দোকানের দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করতে পেরে অনেক অনেক খুশি এবং আনন্দে আশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে মাছখোলা ব্রিজের উপরে ফুচকার দোকানের একটা অসাধারণ দৃশ্য প্রতিদিন হাজার হাজার ফুচকা বিক্রি করা হয় এখান থেকে এবং অনেক মানুষেরা এখানে আনন্দ-বিনোদন করতে আসা বিভিন্ন জেলা থেকে মানুষেরা আমাদের এই ব্রিজের উপরে ফুচকা খেতে আসে অনেক জনপ্রিয় একটা ফুচকার দোকানের চিত্র আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম স্থান মাছখোলা ব্রিজ  সংলঙ্গ ব্রিজ এর উপরে ফুচকার দোকানআশা করি আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগলো ফুচকার দোকানের অসাধারণ দৃশ্য দেখলাম ব্রীজের উপরে লাইনগুলি চেয়ার রয়েছে সবাই এখানে বসে বসে ফুচকা খায় এবং প্রকৃতির সৌন্দর্য উপভোগ করে
মনে পড়ে গেল আমাদের সেই জীবনের একটা অসাধারন স্মৃতি যেটা কখনো ভুলতে পারবো না আমরা এটা হচ্ছে আমাদের কোম্পানির গেন্জি দেওয়ার একটা এবং গেঞ্জি বিতরণ করার একটা অসাধারণ স্মৃতি আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম আমাদের গ্রুপের সদস্যদের কে সবাইকে একসঙ্গে করে একটা ছাদের উপরে গেঞ্জি বিতরণ করা হচ্ছিল তার একটা চিত্র আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন আমরা সবাই সেখানে উপস্থিত ছিলাম আমরা সবাই কে গেঞ্জি টি-শার্ট সবার হাতে তুলে দিয়েছিলাম সবাই টি শার্ট গায়ে দিয়ে রয়েছেন অনেক সুন্দর একটা চমৎকার দৃশ্য আপনারা এখানে দেখতে পাচ্ছেন মনে হচ্ছিল সবথেকে সেরা শান্তি আজ আমরা পেয়েছি এই গেঞ্জি গ্রামের মানুষেরা গ্রুপের সদস্যরা অনেক অনেক খুশি এবং আনন্দিত হয়েছে এই টি-শার্ট দেওয়ায় কারণে আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে টি-শার্ট বিতরনের একটা অসাধারণ দৃশ্য ওই দিনের কথা মনে পড়লে বুকের ভেতরটা অনেক আনন্দে ভরে যায় মনটা অনেক আনন্দে ভরে যায় যে আমরা সবাই একসঙ্গে মিলে অনেক আনন্দ বিনোদন করে টি'শার্ট বিতরণ করেছিলাম তারই একটা দৃশ্য আমি এখন আপনাদের সামনে উপস্থাপন করলাম পুরাতন দিনের এই অসাধারণ স্মৃতিআমাদের এই টি-শার্ট বিতরনের কথা মনে পড়লে অনেক অনেক ভালো লাগে এডমিন ও সদস্যরা সেখানে সভায় উপস্থিত ছিল উপস্থিত থেকে আমরা সবাইকে একত্রিত হয়ে টি-শার্ট বিতরণ করেছিলাম সবাইকে এবং তারা নিয়মিত এখন বর্তমানে সবাই পোস্ট করে অনেক ভাল টিশার্ট পেয়ে তার আরও বেশি আগ্রহ হয়েছিল কাজ করার প্রতি আমি আপনাদের সঙ্গে ছিলাম আপনাদের সঙ্গে থাকব ভবিষ্যতেও আপনাদের সঙ্গে থাকব আশা করি এই টি-শার্ট বিতরনের একটা অসাধারণ দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করতে পেরে এখন অনেক খুশি হয়েছি এবং নিজেকে অনেক গর্বিত মনে করছি খুব সুন্দর গ্রামের যুবক ছেলেদের কে নিয়ে একটা কাজের উদ্যোগ তৈরি করে দেওয়ার একটা অসাধারন মুহুর্ত গ্রামের বেকার যুবকদের কর্মসংস্থানের সুযোগ করে দেওয়ার জন্য আপনাদেরকে অনেক অনেক ধন্যবাদ এবং অনেক অনেক সাদর সম্ভাষণ একটা কথাই বলতে চাই আমি আমাদের এই টি-শার্ট দেওয়ার কারণে আমরা অনেক অনেক খুশি হয়েছি এবং খুবই ভালো লেগেছে আশা করি এটা দেখে আপনাদের অনেক অনেক ভালো লাগবে আমাদের এই টি-শার্ট বিতরনের একটা অসাধারণ দৃশ্য আমি আপনাদের সামনে উপস্থাপন করছি আমার নিজেকে অনেক ভালো লাগছে আর